আপডেট ১৪ মিনিট ৩৪ সেকেন্ড

ঢাকা মঙ্গলবার, ৮ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ , গ্রীষ্মকাল, ১৫ রমযান, ১৪৪০

শিল্প-সংস্কৃতি আমাদের কণ্ঠ সম্প্রচার কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন

আমাদের কণ্ঠ সম্প্রচার কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন

মোস্তাফিজুর রহমান মিন্টু , ৩০ এপ্রিল ২০১৯, নিরাপদ নিউজ: আজ বেলা ১১:৩০ টায় বাংলাদেশ বেতারের সদর দপ্তর, আগারগাঁও-এ সমতল ভূমিতে বসবাসরত ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী ও অনগ্রসর জনগোষ্ঠীর অধিকার ও উন্নয়ন বিষয়ক অনুষ্ঠান- আমাদের কণ্ঠ এর সম্প্রচার কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন উপলক্ষে মিট দ্যা প্রেস অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ বেতারের মহাপরিচালক নারায়ণ চন্দ্র শীল। আরো উপস্থিত ছিলেন, কামাল আহমেদ, পরিচালক (অনুষ্ঠান), জনাব মং সিং ঞো, প্রোগ্রাম অফিসার, হিউম্যান রাইটস প্রোগ্রাম, ইউএনডিপি, ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী ও অনগ্রসর জনগোষ্ঠীর যুবনেতারা, কমিউনিটি রেডিওর প্রতিনিধিবৃন্দ, বেতারের কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ ও বিভিন্ন জাতীয় দৈনিক ও অন-লাইন প্রত্রিকার রিপোর্টারবৃন্দ। অনুষ্ঠানের শুরুতেই ”আমাদের কণ্ঠ” অনুষ্ঠান সম্পর্কে একটি পাওয়ার পয়েন্ট উপস্থাপন করেন, অনুষ্ঠানের প্রযোজক মো: গোলাম রব্বানী, উপপরিচালক, বাণিজ্যিক কার্যক্রম, বাংলাদেশ বেতার, ঢাকা। তিনি জানান ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী ও অনগ্রসর জনগোষ্ঠীর যুবনেতাদের প্রত্যক্ষ অংশগ্রহণে এবং তাদের ভাষায় এ অনুষ্ঠান নির্মাণ করা হচ্ছে। ৮টি সম্প্রদায় যথা গারো, হাজং, সাঁওতাল, খাসি, মাহতো, রবিদাস, হরিজন ও দলিত সম্প্রদায়ের মোট ২০ জন যুবনেতাকে বেতার অনুষ্ঠান নির্মাণ কৌশল বিষয়ে ২দিন প্রশিক্ষণ দেয়া হয়। এ কর্মশালায় প্রতিটি সম্প্রদায়ের নিজস্ব চাহিদা নির্ধারণ করে অনুষ্ঠানের বিষয়বস্তুু নির্বাচন করা হয়।
অনুষ্ঠানের বিষয়বস্তুু নির্বাচনে প্রাধান্য দেয়া হয় মাদক সমস্যা, যৌতুক সমস্যা, বেকার সমস্যা, ভাষা ও সংস্কৃতির বিলুপ্তি, ভূমি সমস্যা, সামাজিক স্বীকৃৃতির অভাব, শিক্ষা গ্রহণে প্রতিবন্ধকতা, নাগরিক অধিকার বিষয়ে সচেতনতার অভাব ইত্যাদি নানা বিষয়। তিনি আরো জানান, এ অনুষ্ঠানের জন্য ইতোমধ্যে চ্যানেল আই সেরা কণ্ঠ ও ক্লোজ আপ তারকাদের দিয়ে হাজং, গারো, খাসি ও সাঁওতাল ভাষার সংমিশ্রনে একটি টাইটেল সং নির্মান করা হয়েছে। এছাড়া, ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর অধিকার ও উন্নয়ন বিষয়ে বিভিন্ন গোষ্ঠীর ভাষার মিশ্রনে একটি গান নির্মান করা হয়েছে। ফেরদৌস হোসেন ভূইয়ার কথায়, বিশিষ্ঠ সুরকার ফরিদ আহমেদের সুরে গানে কণ্ঠ দিয়েছেন দেশের প্রখ্যাত ও জনপ্রিয় দুই সংগীত শিল্পী সাবিনা ইয়াসমিন ও এন্ড্রুকিশোর।
১ এপ্রিল ২০১৯ থেকে প্রতি সোমবার বেলা ২:৩০মিনিটে প্রচারিত হচ্ছে ২০ মিনিট স্থিতির এ রেডিও ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান, বাণিজ্যিক কার্যক্রম, বাংলাদেশ বেতার, ঢাকা মিডিয়াম ওয়েভ ৬৩০ কি:হা ও এফ এম ১০৪ মে: হা:-এ। ৫২ পর্বের বেতার ম্যাগাজিন অনুষ্ঠানটি মার্চ/২০২০ সাল পর্যন্ত প্রচারিত হবে। এছাড়া, বাংলাদেশ বেতারের ৫টি আঞ্চলিক কেন্দ্রে যথা রংপুর, রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল ও সিলেট থেকে প্রতি মাসে একবার (৩য় সোমবার) করে মোট ৬০ বার প্রচারিত হবে।
অনুষ্ঠানের স্বাগত বক্তব্যে উপপরিচালক আল আমিন খান বলেন, বাংলাদেশ বেতার থেকে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের নিয়ে অনেক অনুষ্ঠান প্রচারিত হয়, কিন্তুু যাদের জন্য অনুষ্ঠান এবং যাদেরকে নিয়ে অনুষ্ঠান এ বিষয়টিকে আরো সমন্বয় করা প্রয়োজন। আর এ কাজটি করা হচ্ছে আমাদের কণ্ঠ অনুষ্ঠানের মধ্যমে। তিনি বলেন, যে সম্প্রদায়ের জন্য অনুষ্ঠান নির্মান করা হচ্ছে সে সম্প্রদায়ের যুবনেতাদের দিয়ে তার প্রচারণা চালানো হচ্ছে, ফলে বিষয়টি আরো পার্র্টিসিপেটরি হচ্ছে। তিনি জানান, ভবিষ্যতে বেতারের সব ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর প্রোগ্রামকে সমন্বয় করে বৃহত্তর পরিসরে প্রচারের ব্যবস্থা করা হবে। অনুষ্ঠানে ইউএনডিপি প্রতিনিধি তার বক্তব্যে বলেন, হিউম্যান রাইটস প্রোগ্রাম – ইউএনডিপি বিভিন্ন আঙ্গিকে কাজ করে। তার মধ্যে একটি হচ্ছে অনগ্রসর ও ক্ষুদ্র জাতিস্বত্ত্বার মানবাধিকার রক্ষায় তাদের সচেতন করা। বাংলাদেশ বেতার ও ইউএনডিপি’র এ যৌথ উদ্যোগ ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী ও অনগ্রসর জনগোষ্ঠীর যুবনেতাদের নিজস্ব কেপাসিটি বৃদ্ধি করবে। এ ধরনের একটি অনুষ্ঠান যথাসময় শুরু করায় তিনি বাংলাদেশ বেতারকে ধন্যবাদ জানান।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)