ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট মার্চ ১০, ২০১৯

ঢাকা শনিবার, ১২ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ , গ্রীষ্মকাল, ১৯ রমযান, ১৪৪০

রাজধানী সংবাদ আমি নগরের পিতা নই,সেবক: আতিকুল ইসলাম

আমি নগরের পিতা নই,সেবক: আতিকুল ইসলাম

নিরাপদ নিউজ: ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) নতুন মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেছেন, আমি নগরের পিতা নই, নগরবাসীর সেবক হিসেবে কাজ করতে চাই। নগরের সেবা করতে প্রয়োজনে সকল প্রটোকল ভেঙে আমি অন্যদের মতো কাজ করতে চাই। এজন্য নগরবাসীর অংশগ্রহণ প্রয়োজন। আসুন সবাই মিলে সবার ঢাকা গড়ে তুলি। তি‌নি ব‌লেন, আজকে দায়িত্ব গ্রহণের মধ্যে দিয়ে আমি ঘোষণা দিয়েছি উত্তর সিটি করপোরেশন দুর্নীতিমুক্ত থাকবে।

আজ রবিবার প্রথম কার্যদিবসে মেয়র হিসেবে প্রথম দিনের মত নগরভবনে যোগদান করে তিনি এ কথা বলেন। রবিবার বিকেলে গুলশানে নগরভবণে প্রথম কার্য দিবসে সংবাদ সম্মেলনে মেয়র হিসেবে তার ভবিষ্যৎ কর্মপরিকল্পনা সম্পর্কে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন।

আতিকুল ইসলাম বলেন, একজন সিটি মেয়র হিসেবে দায়িত্ব অনেক। কিন্তু সেসব দায়িত্বগুলোকে স্বল্পমেয়াদি এবং দীর্ঘমেয়াদি বিবেচনায় বাস্তবায়ন করব। তবে যেগুলো বেশি ভোগান্তির কারণ সেসব সমস্যাগুলো অতিদ্রুত সমাধান করতে আজকে কর্মকর্তাদের নির্দেশ দিয়ে দিয়েছি। কিছু দিনের মধ্যেই কার্যক্রম শুরু করব।

তিনি বলেন, ডিএনসিসির আওতাধীন প্রত্যেকটি দোকানে একটি করে ময়লার বিন এবং দুটি করে ফুল-ফল টব রাখতে হবে। অনুরোধ এবং নির্দেশনা অনুযায়ী এ কাজগুলো যারা করবে তাদেরকে রিওয়ার্ড প্রদান করা হবে। অন্যথায় এ বিষয়ে যখন থেকে আমাদের অভিযান শুরু হবে তখন তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। পাশাপাশি যারা বাসার ছাদে, বেলকনিতে বাগান করবেন তাদের কর অবকাশ সুবিধা দেওয়া হবে।

তিনি বলেন, বর্জ্য ব্যবস্থাপনা আমাদের জন্য যেনো বোঝা না হয়ে সম্পদে পরিণতে হয় সেজন্য নির্দেশ দিয়েছি আজ সকালে। একইসঙ্গে হোল্ডিং টেক্স অটোমেশন পদ্ধতিতে চালু করার জন্য ব্যাংকিং খাতের সঙ্গে আলোচনা চলছে। খুব শীঘ্রই চালু করবো।

আগামী ১৭ মার্চ ডিএনসিসির ৫টি অঞ্চলে বিভক্ত করে শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে পরিচ্ছন্নতা বিষয়ক ক্যাম্পেইন শুরু হবে। ‘লাভ ঢাকা’ স্লোগানে শুরু হতে যাওয়া এ কর্মসূচির কথা জানিয়ে মেয়র বলেন, বর্জ্য আমাদের জন্য বোঝা না হয়ে সম্পদে পরিণতে হয় সেজন্য কাজ শুরু করবো। একই সঙ্গে হোল্ডিং ট্যাক্সে অটোমেশন পদ্ধতি উন্নীত করার জন্য আলোচনা শুরু হয়েছে। সেই সঙ্গে নগরবাসী সমস্যা জানাতে একটি হট লাইন সার্ভিস চালু করতে যাচ্ছি আমরা।

সংবাদ সম্মেলনে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের সচিব রবীন্দ্র শ্রী বড়ুয়াসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)