ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট ফেব্রুয়ারি ১০, ২০১৯

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ৮ চৈত্র, ১৪২৫ , বসন্তকাল, ১৩ রজব, ১৪৪০

ধর্মকর্ম আল কোরআন ও আল হাদিস

আল কোরআন ও আল হাদিস

আল কোরআন

বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম
সূরা নিসা
মদীনায় অবতীর্ণ
আয়াত : ৯১. ; রুকু ২৪
৭৫. আর তাদের মধ্যে এমন কতিপয় লোক রয়েছে যারা আল্লাহর সাথে অঙ্গীকার করে আল্লাহ যদি আমাদেরকে নিজ অনুগ্রহে (প্রচুর সম্পদ) দান করেন, তাহলে আমরা অনেক দান-খয়রাত করব এবং খুব ভাল কাজ করব।
৭৬. কার্যত যখন আল্লাহ তাদেরকে নিজ অনুগ্রহ প্রদান করলেন, তখন তারা তাতে কার্পণ্য করতে লাগল এবং (আনুগত্য করা হতে) মুখ ফিরিয়ে নিল, আর তারা তো মুখ ফিরিয়ে রাখতেই অভ্যস্ত।

আল হাদিস
ঈমান ও তার বৈশিষ্ট্যসমূহের বিবরণ
৫। আবু হুরাইরা (রা) থেকে বর্ণিত। তিনি বলেন, একদিন নবী (সা) লোকজন নিয়ে বসেছিলেন। এমতাবস্থায় একজন লোক এসে তাঁকে জিজ্ঞেস করলো, “ঈমান কি?” তিনি বললেন, “ঈমান হলো, তুমি আল্লাহ, তাঁর ফেরেস্তা, (হাশরের দিন) তাঁর সাথে সাক্ষাৎ এবং তাঁর রাসূলগণের উপর বিশ্বাস রাখবে। মৃত্যুর পর আবার জীবিত হতে হবে তার উপর বিশ্বাস রাখবে।” লোকটি (আবার) জিজ্ঞেস করলো, “ইসলাম কি?” তিনি বললেন “ইসলাম হলো, তুমি আল্লাহর বন্দেগী করবে এবং তাঁর সাথে কাউকে শরিক করবে না সালাত কায়েম করবে, নির্ধারিত হারে (ফরয) যাকাত আদায় করবে ও রমজান মাসে (সিয়াম) রোযা রাখবে।” লোকটি পুনরায় জিজ্ঞেস করলো, “ইহসান কি?” তিনি বললেন, “ইহসান হলো তুমি এমনভাবে আল্লাহর বন্দেগী করবে, যেন তাঁকে দেখছো। যদি মনের অবস্থা এমন না হয়, তবে অন্তত তিনি তোমাকে দেখছেন এটা ভাবতে হবে।

লোকটি আবার জিজ্ঞেস করলো; “কিয়ামত কখন হবে”? তিনি বললেন, “এ বিষয়ে জিজ্ঞাসিত ব্যক্তি জিজ্ঞাসাকারীর চেয়ে বেশি জানে না। তবে আমি তার কতিপয় নিদর্শন বলে দিচ্ছি। যখন বাঁদী-দাসী তার মনিবদের জন্মদেবে এবং কালো উটের রাখালরা দালান-কোঠায় বসে গর্ব-অহংকার করবে। যে পাচঁটি বিষয়ে আল্লাহ ছাড়া আর কেউ জানে না, কিয়ামত তাদেরই একটি। এরপর নবী (সা) এ সম্পর্কিত কুরআনের আয়াতটি
শেষ পর্যন্ত পাঠ করলেন। এরপর লোকটি চলে গেল। তিনি আল্লাহর রাসূল বললেন, তোমরা তাকে ফিরিয়ে নিয়ে এসো। কিন্তু সাহাবীগণ গিয়ে কাউকেই দেখতে পেলেন না। তখন রাসূল (সা) বললেন, “ইনি জিব্রাঈল; লোকজনকে তাদের দীন সম্পর্কে জ্ঞানদানের জন্য এসেছিলেন।
(বুখারী-কিতাবুল ঈমান)

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)