ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট ২৬ মিনিট ৪৫ সেকেন্ড

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ১০ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ , গ্রীষ্মকাল, ১৭ রমযান, ১৪৪০

এই দিনে ইতিহাসে এই দিনে

ইতিহাসে এই দিনে

আজ (শুক্রবার) ২২ মার্চ’২০১৯

বিশ্ব পানি দিবস
১৯৯২ সালের নভেম্বরে জাতিসংঘের ৪৭তম সাধারণ অধিবেশনে ২২ মার্চকে বিশ্ব পানি দিবস ঘোষণা করে। বাংলাদেশে প্রতি বছর অত্যন্ত গুরুত্বের সঙ্গে দিবসটি পালিত হয়। বাংলাদেশে পানি দিবসের তাৎপর্য ও গুরুত্ব বেশি। অর্থনৈতিক সমৃদ্ধি ও সামাজিক কল্যাণের জন্য পানি সম্পদ উন্নয়নে সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যেই বিশ্ব পানি দিবস পালনের সিদ্ধান্ত হয়। পানির অপর নাম জীবন। বিশুদ্ধ পানি একটি অপরিহার্য পণ্য। নতুন শতাব্দী শুরু হলেও বিশ্বের একশ ভাগ মানুষের জন্য বিশুদ্ধ পানির নিশ্চয়তা বিধান হয়নি । আজও বিশুদ্ধ পানির কোনো বিকল্প নেই। তাই পানি সম্পদের সুরক্ষা একটি অত্যাবশ্যকীয় দায়িত্ব। পানি ব্যতিত জীবন অসম্ভব। জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে পানির । প্রয়োজন। বিশ্বের বহু অংশে বিশুদ্ধ পানির মারাত্মক অভাব বিদ্যমান। ক্রমান্বয়ে পানি সম্পদ বিনষ্ট হচ্ছে। বৃদ্ধি পাচ্ছে দূষণের মাত্রা। পানির স্তর দ্রুত নিচে নেমে যাচ্ছেÑশুকিয়ে ভূগর্ভস্থ পানির আধার। নদ-নদী শুকিয়ে যাচ্ছে রাসায়নিক শিল্পবর্জ্য বিনষ্ট করছে পানির গুণাগুণ। পানি সম্পদের নিরাপদ সরবরাহ ও সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনার অভাব উন্নয়নশীল বিশ্বের ৮০% রোগ ও মৃত্যুর কারণ। জনসংখ্যার দ্রুত বৃদ্ধির ফলে পানির অভাব দিন দিন আরো প্রকট হচ্ছে। নগরায়ন সম্প্রসারণ ও নগর দারিদ্র সৃষ্টি করছে পানি সঙ্কট। বড় বড় শহরে পানি সরবরাহ ও নিষ্কাশন ব্যবস্থা বিপর্যস্ত। সুপেয় পানি, স্যানিটেশন, কৃষি, শিল্প ও নগর উন্নয়ন, জলবিদ্যুৎ উৎপাদন, অভ্যন্তরীণ মৎস্য চাষ, যোগাযোগ, বিনোদন ও অন্যান্য বহু ক্রিয়াকর্মের জন্য মিঠা পানি অপরিহার্য। প্রকৃতির কর্ম-ক্ষমতা বজায় রাখার জন্যও প্রয়োজন পানির ভারসাম্যতা। বাধ, নদীর গতি পরিবর্তন ও সেচ প্রকল্পও পানির গুণ ও পরিমাণের ওপর নির্ভর করে।

১৯৪৫ সালের এ দিনে মিশরের রাজধানী কায়রোয় আরব লীগ প্রতিষ্ঠিত হয়। তৎকালীন মিশরের বাদশাহ ফারুকের প্রস্তাব মোতাবেক এ সংস্থা গঠিত হয়। প্রতিষ্ঠাতা দাতা দেশগুলোর অন্যতম হলো, সিরিয়া, ইরাক, সউদি আরব, মিসর এবং ইয়েমেন। পরে আরো পনরটি আরব দেশ এই সংস্থায় যোগদান করে। বন্দর নগরী আলেকজান্ডেরে এক বৈঠকে আরব লীগ প্রতিষ্ঠার পরিকল্পনা অনুমোদিত হয়েছিলো। ১৯৫০ সালে আরব লীগের সদস্যভুক্ত দেশগুলো পারস্পরিক প্রতিরক্ষা চুক্তি স্বাক্ষর করে। ১৯৬৫ সালে আরব লীগ অভিন্ন বাজার প্রতিষ্ঠা করে। তবে আরব লীগের ভেতর নানা ধরণের মত বিরোধ থাকার কারণে এ সংস্থা সঠিকভাবে কার্যকর হয়ে উঠতে পারছে না।

১৯৮৫ সালের এ দিনে বিশ্বের ওজোন স্তর সংরক্ষণের জন্য আন্তর্জাতিক চুক্তি অনুমোদন করা হয়। ভিয়েনা কনভেনশনের মাধ্যমে এই চুক্তি অনুমোদন করা হয়। ১৯৮৮ সালের ২২শে সেপ্টেম্বরে এই চুক্তি বলবৎ করা হয় এবং বলা হয় জাতিসংঘের পরিবেশ সংরক্ষণ বিষয়ক কর্মসূচি এই চুক্তি বাস্তবায়নের ব্যাপারে সচিবালয়ের দায়িত্ব পালন করবে। ওজোন স্তরের ক্ষতি করে এমন সব উপাদানের ব্যবহার নিষিদ্ধ করা খুবই প্রয়োজীয় হয়ে উঠছিলো। কারণ ওজোন স্তরের ক্ষতি হলে পৃথিবীর আবহ মন্ডলে ব্যাপক পরিমাণে অতিবেগুণী রশ্মি-বি বা ইউভি-বি প্রবেশ করে পৃথিবীর জীবমন্ডলের ব্যাপক ক্ষতি করতে পারে। এরফলে যে সব ক্ষতিকারক প্রভাব দেখা দিতে পারে তার মধ্যে ত্বকের ক্যান্সার বৃদ্ধি, চোখে ছানি পড়ার হার বৃদ্ধি, দেহের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা দুর্বল হওয়া প্রভৃতি দেখা দিতে পারে।

১৫৯৯ সালের এ দিনে বিখ্যাত অংকন শিল্পী স্যার এন্থনি ভ্যান ডাইক জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ইংল্যান্ডের তৎকালীন রাজদরবারে শীর্ষস্থানীয় চিত্রশিল্পী ছিলেন। তার অংকিত রাজা প্রথম চালর্সের পোট্রেয়েট সহ অন্যান্য চিত্র শিল্পী পরবর্তী দেড়শ বছর ইংল্যান্ডের পোট্রেয়েট অংকনের উপর গভীর প্রভাব বজায় রেখেছিলো। তিনি জল রং ব্যবহারের ক্ষেত্রে এবং ইচিং বা খোদাই শিল্পের ক্ষেত্রে গুরুত্বর্পূণ আবিষ্কার করেছেন।

২০০৪ সালের এ দিনে ফিলিস্তিনের ইসলামী প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের আধ্যাত্মিক নেতা শেখ আহমদ ইয়াসিন ইহুদিবাদী ইসরাইলের বর্বরোচিত হামলায় শহীদ হন। তিনি গাজা উপত্যকার একটি মসজিদে ফজরের নামাজ আদায় করার পর ইসরাইলি হেলিকপ্টারের হামলার শিকার হন। তার সাথে আরো দশজন ফিলিস্তিন শহীদ হয়েছিলেন। শহীদ শেখ আহমদ ইয়াসিন ১৯৩৮ সালে ফিলিস্তিনে জন্মগ্রহণ করেন। ১৯৮৭ সালে আরো কয়েকজানের সম্মিলত ভাবে ফিলিস্তিনের ইসলামী প্রতিরোধ আন্দোলন বা হামাসের প্রতিষ্ঠা করেন। এর দু বছর পর ইসরাইল তাকে গ্রেফতার করে। ১৯৯৭ সালে বন্দি বিনিময়ের মাধ্যমে হামাস শেখ ইয়াসিনকে মুক্ত করে। তবে শেখ ইয়াসিনের মর্মান্তিক ভাবে শহীদ হওয়ার পরও হামাসের প্রতিরোধ যুদ্ধে আজও ভাটা পড়েনি।

১৯৪২ সালের এ দিনে বৃটেনের রাজনীতিবিদ স্যার স্টানফোর্ড ক্রিপস ভারতের স্বাধীনতার ব্যাপারে আলোচনা করার জন্য ভারতে আসেন। তিনি মোহনদাস করম চাঁদ গান্ধী সহ ভারতের অনান্য নেতাদের সাথে আলোচনার জন্য দিল্লী আগমন করেন। তিনি ভারতের স্বাধীনতা এবং জাপানের বিরুদ্ধে ভারতীয় নেতাদের সমর্থণ আদায়ের ব্যাপারে আলোচনা করেন। পরে এটি ক্রিপস মিশন নামে পরিচিত হয়। তবে ক্রিপসের এই মিশন সফল হয়নি। ব্যর্থ মনোরথ ক্রিপস বৃটেনে ফিরে যাওয়ার পর গান্ধীকে গ্রেফতার করা হয়।

১৩৯৪ সালের এ দিনে বিখ্যাত মোংগল শাসক উলুগ বেগ জন্মগ্রহণ করেন। তিনি একাধারে শাসক, গণিতবিদ এবং তার সময়ের সর্ব সেরা জ্যোতির্বিজ্ঞানী ছিলেন। জ্যোতির্বিজ্ঞানে তার অসাধারণ আগ্রহ ছিলো। তিনি সমরখন্দে একটি অবজারভেটরী বা মান মন্দির নির্মাণ করেছিলেন। পর্যবেক্ষণের মাধ্যমে তিনি আলেজান্ডারের যুগের জ্যোতির্বিজ্ঞানী টলেমীর অনেক কাজে ভুল আবিষ্কার করেন। তবে উলুগ বেগ নিজ পুত্রের হাতে নিহত হয়েছিলেন। এরপর তার মান মন্দির ধ্বংস হয়ে যায়। ১৯০৮ সালে তা পুনরুদ্ধার করা হয়।

আনজৌর যুদ্ধে স্কটদের হাতে ইংরেজদের পরাজয় (১৪২১)
বাংলা-বিহারে লর্ড কর্নওয়ালিসের চিরস্থায়ী বন্দোবস্ত চালু (১৭৯৩)
বহুগামিতা নিষিদ্ধ করে মার্কিন কংগ্রেসে বিল পাস (১৮৮২)
অবিভক্ত ভারতে ফৌজদারি কার্যবিধি প্রবর্তন (১৮৯৮)
কায়রো সনদ গ্রহণের মধ্য দিয়ে আরব লীগ গঠিত (১৯৪৫)
জর্দানের স্বাধীনতা লাভ (১৯৪৬) –
ভাইসরয় হিসেবে লর্ড মাউন্ট ব্যাটেনের ভারতে আগমন (১৯৪৭)
ভারতে সরকারিভাবে শকাব্দ পঞ্জিকা চালু (১৯৫৭)
বাংলাদেশকে স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে পাকিস্তানের স্বীকৃতি (১৯৭৪)
নউইয়র্কে যুক্তরাষ্ট্রের বিমান বিধ্বস্ত হয়ে নিহত ২৭ (১৯৯২)
প্রখ্যাত চলচ্চিত্র নির্মাতা উইলিয়াম হান্না’র ৯০ বছর বয়সে লস এঞ্জেলসে মৃত্যু (২০০১)

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)