ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট মে ২৯, ২০১৯

ঢাকা শনিবার, ৩ ভাদ্র, ১৪২৬ , শরৎকাল, ১৬ জিলহজ্জ, ১৪৪০

বরিশাল ঈদকে সামনে রেখে নিন্মমানের ডালঢা ও পোড়া তেলসহ পায়ে তৈরী হচ্ছে সেমাই!

ঈদকে সামনে রেখে নিন্মমানের ডালঢা ও পোড়া তেলসহ পায়ে তৈরী হচ্ছে সেমাই!

ফরহাদ হোসেন, নিরাপদ নিউজ: আসন্ন ঈদুল ফিতর উপলক্ষে লালমোহনের সেমাই কারখানা গুলোতে প্রতিনিয়ত ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছে শ্রমিক মালিকরা। তবে এসব কারখানার নোংরা অপরিচ্ছন্ন পরিবেশ, নিন্মমানের ডালঢা, বহুদিনের পোড়া তেল দিয়ে তৈরী সেমাই কতটা স্বাস্থ্যসম্মত সেটা দেখার যেন কেউ নেই। এখানের উৎপাদিত সেমাইগুলো প্রতিদিন উপজেলাও জেলা শহরের বিভিন্ন স্থানে সরবরাহ করা হচ্ছে।

নিম্নমানের ডালঢা, পোড়া তেল, শ্রমিকদের শরীরের ঘাম, অপরিস্কার হাতের ছোঁয়ায় তৈরী এ সেমাইয়ের মান নিয়ন্ত্রণে বিএসটিআই বা স্যানিটারি পরিদর্শকের কোন নজরদারি পরিলক্ষিত হয়নি। ভোলার ফরাজগঞ্জের ছোট বড় ৩ টি কারখানায় ঈদ উপলক্ষে সেমাই তৈরী হচ্ছে। সেমাই শ্রমিকদের হাতে গ্লোবস এবং মাস্ক ব্যবহারের নিয়ম থাকলেও তা মানা হচ্ছে না। ভোগ্য এ পণ্য তৈরীর জন্য ঘর ও ঘরের পরিবেশও নোংরা। ঘরের মেঝেতে খোলা অবস্থায় পড়ে আছে ডালঢার পাত্র। ময়লা, গাদ ও দুর্গন্ধযুক্ত ট্রে এবং কাদাযুক্ত মেঝে পরিষ্কারের কোন বালাই না থাকলেও প্রতিদিনই তৈরী হচ্ছে শত শত মন সেমাই।

সরেজমিনে দেখা গেছে, ফরাজগঞ্জ সাতানী এলাকার লতিফ মাস্টার বাড়ির ‘মাসফি’ সেমাই কারখানায় ব্যস্ত সময় পার করছে মালিক শ্রমিকরা। তৈরীকৃত সেমাইগুলো ইতোমধ্যে উপজেলাসহ জেলা শহরের বিভিন্ন এলাকায় সরবরাহও হয়ে গেছে। সেমাই তৈরীর জন্য খামির (ময়দা দিয়ে প্রক্রিয়াজাতকরণ) পরে আছে নোংরায়। মেশিন না থাকায় খামির তৈরি হচ্ছে পায়ে মাড়িয়ে। সেমাই ভাজার জন্য রয়েছে বহুদিনের পোড়া তেল।

মাসফি ফুড প্রডাক্সের বিভাগের কোনো অনুমতি আছে কিনা জানতে চাইলে মালিক লোকমান হোসেন বলেন, ট্রেড লাইসেন্স আছে। তবে পরীক্ষামূলকভাবে দুই বছর কারখানা চালালেও এখন পর্যন্ত কাগজপত্র দেখার জন্য আপনারা ছাড়া কেউ আসেনি।

এব্যাপারে উপজেলা স্যানেটারি ইন্সপেক্টর মো: রুহুল আমিনের ব্যবহৃত মোবাইলে একাধিকবার কল দিলেও তিনি মোবাইল রিসিভ করেননি।
ভোলা সিভিল সার্জন ডা. রথীন্দ্রনাথ মজুমদার বলেন, আমরা বেশ কিছু সেমাই জব্দ করেছি এবং উপজেলা নির্বাহী অফিসারদেরকে স্যানেটারী অফিসারের মাধ্যমে অবহিত করা হয়েছে। এ বিষয়ে লালমোহন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. হাবিবুল হাসান রুমি বলেন, আমরা দ্রুত ব্যবস্থা নেবো।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)