ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট জুন ১৯, ২০১৭

ঢাকা সোমবার, ১৪ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৫ , গ্রীষ্মকাল, ১২ রমযান, ১৪৩৯

বিনোদন কাফনের আন্দোলন নিয়ে যারা আমাকে খোঁচায় তারা স্টুপিড, তারা মুর্খ: শাকিব

কাফনের আন্দোলন নিয়ে যারা আমাকে খোঁচায় তারা স্টুপিড, তারা মুর্খ: শাকিব

কাফনের কাপড় পরা নিয়ে যা বললেন শাকিব খান

নিরাপদ নিউজ : যৌথ প্রযোজনায় চলচ্চিত্র নির্মাণের প্রসঙ্গ এলেই অনেকেই বলেন, যৌথ প্রযোজনার ছবির বিরুদ্ধে একসময় শাকিব খান কাফনের কাপড় মাথায় নিয়ে রাস্তায় নেমেছিলেন। আর সেই শাকিব খান কিনা এখন যৌথ প্রযোজনার ছবিতে অভিনয় নিয়ে ভীষণ ব্যস্ত সময় পার করছেন!

যৌথ প্রযোজনার ছবির বিরুদ্ধে কাফনের কাপড় নিয়ে আন্দোলনের এই খোঁচায় বিরক্ত জনপ্রিয় চিত্রনায়ক শাকি খান। তিনি এটাকে কিছু বাজে লোকের অপপ্রচার বলে দাবি করেন। গতকাল রোববার (১৮ জুন) রাজধানীর একটি রেস্তোরাঁয় জাজ মাল্টিমিডিয়া, হল মালিকদের সংগঠক, চলচ্চিত্র প্রদর্শক সমিতি ও চলচ্চিত্র বুকিং এজেন্ট সমিতির আয়োজনে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন।

তাদের ‘স্টুপিড’ উল্লেখ করে শাকিব বলেন, ‘আমি স্বীকার করছি কাফনের কাপড় নিয়ে রাস্তায় নেমেছিলাম। কিন্তু সেটা যৌথ প্রযোজনার ছবির বিরুদ্ধে নয়, হিন্দি-উর্দু ছবির বিরুদ্ধে। আমার কথা বিশ্বাস না হলে সেই সময়ের ভিডিও ফুটেজ, পত্র-পত্রিকায় ছবি ও সংবাদ দেখুন। সেখানে ব্যানারে স্পষ্ট উল্লেখ ছিল, বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলায় হিন্দি-উর্দু ছবি চলবে না। যৌথ প্রযোজনার ছবির বিরুদ্ধে কাফনের কাপড় পরে আমি আন্দোলন করেছি যারা বলেন তারা স্টুপিড। তারা মুর্খ।’

যৌথ প্রযোজনার ছবি প্রসঙ্গ তুলে শাকিব বলেন, ‘যৌথ প্রযোজনার ছবি নির্মাণ হচ্ছে আমাদের জন্মের আগে থেকে। যৌথ প্রযোজনায় ‘অবিচার’ ছবিতে অভিনয় করেছেন মিঠুন চক্রবর্তী, যখন তিনি বোম্বের সুপারস্টার ছিলেন। সেই ছবিতে আমাদের দেশ থেকে রোজিনা ম্যাডাম, নূতন ম্যাডাম আর এটিএম শামসুজ্জামান ছিলেন। এরপর যৌথ প্রযোজনায় ‘দূরদেশ’, শাবানা ম্যাডামের প্রডাকশন অনেক ছবি নির্মিত হয়েছে। দু’দেশের মধ্যে দারুণ একটা বোঝাপড়ার সৃষ্টি হয়েছে। সে সময় কি এটা যৌথ প্রতারণা ছিল না? তাহলে এখন কেন ধরছেন ভাই?’

কেন যৌথ প্রযোজনায় ছবি নির্মিত হয় এ নিয়ে শাকিব বলেন, ‘দুদেশের সংস্কৃতির যৌথ প্রয়াসে যৌথ প্রযোজনায় ছবি নির্মিত হয়। কি লাভ হচ্ছে যৌথ প্রযোজনার ছবিতে? এর উত্তরে শাকিব বলেন, এদেশ থেকে ওদেশে যখন ১০টা শিল্পী কাজ করছেন, যারা ভালো কাজ করছেন তারা টিকেই যাচ্ছেন। পাঁচটা ভালো টেকনিশিয়ান টিকে যাচ্ছেন। মানে যারা ভালো তারা টিকে যাচ্ছেন। তাছাড়া দুদেশে থেকে টাকা লগ্নি হওয়ায় বাজেট দিগুণ হচ্ছে। এতে ভালো কাজ করা যাচ্ছে।’

কথা প্রসঙ্গে শাকিব খান তার অভিনীত যৌথ প্রযোজোনায় নির্মিত ‘নবাব’ ছবিটি নিয়ে বলেন, ‘এই ছবির মাধ্যমে ইন্ডিয়ায় আমি এদেশের প্রতিনিধিত্ব করছি। ছবিতে বাংলাদেশের পুলিশ বাহিনীকে অনেক বড় অবস্থানে দেখানো হয়েছে। যেটা পুলিশবাহিনীর জন্য অনেক গর্বের হবে। ছবি মুক্তির পর সবাই এটা বুঝতে পারবেন। শুধু ভারত-বাংলাদেশ নয়, বিশ্বের কয়েকটি দেশে ‘নবাব’ মুক্তির প্রক্রিয়া চলছে। তার মানে পুরো বিশ্বের কাছে বাংলাদেশের পুলিশের ভাবমুর্তি উজ্বল হবে এই ছবির মাধ্যমে। সর্বোপরি নবাব ছবিটি হবে বাঙালি জাতির জন্য একটি গর্বের ছবি।

এমন ভালো ছবিকে সাপোর্ট না করে অনেকেই রাস্তায় নামছেন আন্দোলন করতে। বড়বড় চাপাবাজি করছেন। গত পাঁচ-সাত বছরে কয়টি ছবি বানিয়েছেন আপনারা? একটা আন্তর্জাতিক মানের সিনেমা বানিয়েছেন আপনারা? আমরা যারা চেষ্টা করছি তাদের কেন টেনে নামাচ্ছেন?’

শাকিব বিভিন্ন সিনিয়র অভিনেতাদের উদ্দেশ্য করে বলেন, ‘এখন অনেক সাহেব এসে বড়বড় লেকচার দিচ্ছেন, নেতাগিরি করছেন। কোথায় ছিলেন এতদিন সাহেব? এতগুলো বছর তো আপনাদের দেখিনি। সাহেবরা তো নিজেরা নিজেদের ব্যবসা-বাণিজ্য নিয়ে ব্যস্ত। একটা ভালো উদ্যোগে যখন সাহেবদের ডাকা হতো, তখন কেউ আসতেন না। সাহেবদের তো অনেক টাকা হয়েছে। তাহলে চলচ্চিত্রে লগ্নি করছেন না কেন? আপনারা লগ্নি করবেন না, কাউকে করতেও দেবেন না। সুতরাং এসব দেখার সময় নেই। এসব নেতাগিরি-ফাতরাগিরি দেখার সময় বাংলাদেশের মানুষের নেই।’

এই নায়ক বলেন, ‘যদি যৌথ প্রযোজনার নামে যৌথ প্রতারণা হয় তবে আটকান। এখন যদি পায়ে-পায়ে আইন ধরা হয় তবে সেটা তো হবে না। আপনারা দেখুন ছবিটা অশ্লীল কিনা, দেশকে ছোট করা হচ্ছে কিনা।’

এদিকে সংবাদ সম্মেলন শেষে শাকিব আলাপকালে জানান, আজ সোমবার (১৯ জুন) তিনি লন্ডনের উদ্দেশ্যে যাত্রা করছেন। সেখানে তিনি যৌথ প্রযোজনার ‘চালবাজ’ ছবির শুটিংয়ে অংশ নেবেন। এই ছবিতে শাকিবের নায়িকা কলকাতার শুভশ্রী।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)