আপডেট ১০ মিনিট ৪৯ সেকেন্ড

ঢাকা সোমবার, ৭ কার্তিক, ১৪২৬ , হেমন্তকাল, ২২ সফর, ১৪৪১

টেনিস গ্যালারিতে বসে ফেদেরারের খেলা দেখলেন সস্ত্রীক টেন্ডুলকার

গ্যালারিতে বসে ফেদেরারের খেলা দেখলেন সস্ত্রীক টেন্ডুলকার

গ্যালারিতে বসে ফেদেরারের খেলা দেখলেন সস্ত্রীক টেন্ডুলকার

নিরাপদ নিউজ : তিনি ক্রিকেট ঈশ্বর হলেও টেনিসের ভক্ত তা সবারই জানা। রজার ফেদেরার তার পছন্দের তালিকার এক নম্বরে।  তাই চলতি উইম্বলডনে এই সুইস তারকার খেলা দেখতে স্টেডিয়ামে সস্ত্রীক হাজির হলেন মাস্টার ব্লাস্টার। প্রিয় খেলোয়াড়কে উৎসাহ দিয়েছেন ম্যাচের পুরো সময় জুড়ে। আর এমন ম্যাচে এগারতম বাছাই চেক প্রজাতন্ত্রের টমাস বার্ডিচকে হারিয়ে ১১তমবারের মত উইম্বলডনের ফাইনালে উঠলেন ফেদেরার।

কোনো গ্র্যান্ড স্ল্যামের সেমিফাইনাল বা ফাইনালে ফেদেরার খেলা থাকলেই তা সামনা-সামনি বসে উপভোগ করার চেষ্টা করেন টেন্ডুলকার। অতীতেও এমন ঘটনা ঘটেছে বহুবার। আর যদি সামনা-সামনি দেখতে না পারেন, তবে তা টিভি সেটে বসেই দেখে নেন তিনি। এ বিষয়ে অতীতে টেন্ডুলকার বলেছিলেন, ‘সুযোগ পেলে চেষ্টা করি সামনা-সামনি ফেদেরার খেলতে দেখতে। কিন্তু সব সময় না পারলেও টিভি সেটের সামনে ফেদেরার সব ম্যাচই দেখি আমি। ‘

তাই আরও একবার সামনা-সামনি ফেদেরার খেলা দেখলেন টেন্ডুলকার। উইম্বলডনের সেমিফাইনালে বার্ডিচের মুখোমুখি হয়েছিলেন ফেদেরার। সেই ম্যাচ দেখতে গ্যালারিতে হাজির টেন্ডুলকার। সেখানেই তিনি বলেন, ‘সব সময়ই এখানে আসাটা আমার জন্য অন্যরকম এক অনুভূতি। টেনিসে উইম্বলডনের উপরে কিছু হয় না। ‘

টেন্ডুলকারের কাছে প্রশ্ন ছুড়ে দেয়া হয়েছিলো- কাকে দেখতে এখানে এসেছেন তিনি! রাখ-ঢাক না করেই টেন্ডুলকারের উত্তর, ‘গত ১০ বছর ধরে ফেদেরারকে দেখছি। আমি এবারও ফেদেরারের খেলা দেখতে এখানে এসেছি। ‘

ফেদেরারের খেলা দেখতে এসে প্রিয় তারকার প্রশংসা করতে ভুলে যাননি টেন্ডুলকার, ‘আমার মতে, একজন স্পোর্টসম্যান ও একজন টেনিস কেলোয়াড়কে গোটা বিশ্ব সম্মান করে। কিন্তু আমি ফেদেরারকে ব্যক্তিগতভাবে চিনি, আমি ওকে শ্রদ্ধা করি। ও খুব সাধারণ মানুষ। ওকে চেনাটা আমার জন্য প্রাপ্তি। ‘

১৮টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম ও ৭টি উইম্বলডন জয়ী ফেদেরার আরও একটি শিরোপা থেকে এক ধাপ দূরে দাঁড়িয়ে। ফাইনালেও টেন্ডুলকারের সামনে ফেদেরার শিরোপা জিতলে ক্রিকেটের রেকর্ডপুত্রের তার খেলা দেখাটা সার্থকই হবে বটে।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)