ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট আগস্ট ১০, ২০১৯

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ৮ ভাদ্র, ১৪২৬ , শরৎকাল, ২০ জিলহজ্জ, ১৪৪০

রাজশাহী, লিড নিউজ, সড়ক সংবাদ ঢাকা-টু-বগুড়া ৬ ঘণ্টার পথ, ঈদে বাড়ি ফিরতে লাগছে ২০ ঘণ্টা!

ঢাকা-টু-বগুড়া ৬ ঘণ্টার পথ, ঈদে বাড়ি ফিরতে লাগছে ২০ ঘণ্টা!

নিরাপদ নিউজ: বগুড়া শহরের ঢাকা-রংপুর-বগুড়া মহাসড়কে যান চলাচলে স্বাভাবিক রাখতে পুলিশ সদস্যরা কাজ করে যাচ্ছেন। এদিকে ঈদে বাড়ি ফেরত যাত্রীদের অভিযোগ বঙ্গবন্ধু সেতুতে থাকছে দীর্ঘ যানজট। বাস চালক ও যাত্রীদের অভিযোগ বঙ্গবন্ধু সেতুতেই সময় লাগছে বেশি। ঢাকা থেকে বগুড়ায় ৬ ঘণ্টার পথে ঈদে বাড়ি ফিরতে লাগছে ২০ ঘণ্টা।

যাত্রীবাহী একাধিক বাসের চালকরা জানান, বগুড়া সড়কে তেমন কোন যানজট নেই। তবে বঙ্গবন্ধু সেতুতে দীর্ঘলাইনে দাঁড়িয়ে থেকে টোল দিতে হচ্ছে। সেখানেই ৪ থেকে ৫ ঘণ্টা লাগছে টোল দিতে। ঢাকা থেকে বগুড়া ফিরতে সময় লাগে ৬ ঘণ্টা। সেখানে সময় লাগছে এখন ১৮ থেকে ২০ ঘণ্টা।

ঢাকা ফেরত যাত্রী বগুড়া শহরের বাসিন্দা সৈয়দ আলম জানান, তিনি ঢাকার কল্যাণপুর থেকে রাত ১০ টার বাসে ওঠেন। সেই গাড়ি ছাড়ে রাত ২ টায়। এরপর থেকে যানজটের কারণে বাস চলেছে খুবই ধীরগতিতে। বঙ্গবন্ধু সেতুতে টোল ও বেপরোয়া চালকের কারণে যানজট লেগে প্রায় ৪ ঘণ্টা অপেক্ষা করতে হয়েছে। তারপর ১৯ ঘণ্টা পর বগুড়ায় এসেছে বাস।

তবে দীর্ঘ এই যানজট নিয়ে ট্রাফিক পুলিশের কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি। শনিবার মহাসড়কের বিভিন্ন স্থানে দেখা গেছে পুলিশ সদস্যদের। যানবাহনগুলো সারিবদ্ধভাবে যাতায়াতে সহায়তা করছে। এদিকে মোটর মালিক ও শ্রমিকরাও বিভিন্ন স্থানে পুলিশ সদস্যদের কাজে সহযোগিতা করছে।

শহরের মাটিডালী বিমান মোড়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সনাতন চক্রবর্তী, সদর থানার ওসি এসএম বদিউজ্জামানসহ পুলিশ সদস্যরা যানজট নিরসনে কাজ করছেন। শহরসহ বিভিন্ন স্থানে ট্রাফিক ইন্সপেক্টর রেজাউল করিম রেজা, সালেকুজ্জামানসহ অন্যান্য কর্মকর্তা দায়িত্ব পালন করছেন।

ট্রাফিক ইন্সপেক্টর রেজাউল করিম রেজা জানান, বগুড়া শহরসহ গোটা জেলা যানজট মুক্ত রাখতে ট্রাফিক পুলিশ দিনরাত কাজ করে যাচ্ছেন। ঈদের আগে ও পরে সড়ক-মহাসড়ক যানজটমুক্ত রাখতে তৎপরতা অব্যহত রাখা হবে পুলিশের পক্ষ থেকে।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)