ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট ৫ মিনিট ২১ সেকেন্ড

ঢাকা বুধবার, ২৬ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ , হেমন্তকাল, ১৩ রবিউস-সানি, ১৪৪১

ঢাকা পদ্মার তীব্র স্রোতের টানে ভেসে গেল নববিবাহিত স্বামী-স্ত্রী

পদ্মার তীব্র স্রোতের টানে ভেসে গেল নববিবাহিত স্বামী-স্ত্রী

নিরাপদনিউজ: গোয়ালন্দ উপজেলার দৌলতদিয়া ৪নং ফেরিঘাট এলাকায় গোসল করতে নেমে এক নববিবাহিত স্বামী-স্ত্রী নিখোঁজ হয়েছেন। নিখোঁজ স্বামীর নাম ইমন (২২) ও স্ত্রীর নাম আঞ্জুম (১৮)। মাত্র কয়েকদিন আগে ইমন ও আঞ্জুম একে অপরকে ভালোবেসে বিয়ে করেন। তিনদিন আগে আঞ্জুমের চাচাতো বোনের বিয়ের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে রাজবাড়ী জেলার গোয়ালন্দে আসেন তারা। পরে রোববার দুপুর ২টার দিকে তারা পদ্মা নদীতে গোসল করতে নামেন। একপর্যায়ে পদ্মার তীব্র স্রোতের টানে ভেসে যায় নববিবাহিত স্বামী-স্ত্রী।

নিখোঁজ আঞ্জুম রাজবাড়ী সদর উপজেলার খানখানাপুর ইজারা পাড়া গ্রামের আজিম শেখের মেয়ে ও তার স্বামী ইমন মাদারীপুর জেলার কালকিনি উপজেলার তৌফিকচর গ্রামের মোশাররফ হোসেনের ছেলে। তারা ঢাকায় বসবাস করতেন।

সরেজমিন জানা যায়, শুক্রবার আঞ্জুমের চাচাতো বোন দৌলতদিয়া ৩নং ফেরিঘাট এলাকার আবু সাইদের মেয়ের বিয়ের অনুষ্ঠান ছিল। সেই অনুষ্ঠানে অংশ নিতেই ইমন ও আঞ্জুম দৌলতদিয়ায় আসেন। প্রত্যক্ষদর্শী আফসানা আক্তার (১৭) জানান, তারা সবাই বিয়ের অনুষ্ঠানে এসেছেন। রোববার দুপুর ২টার দিকে বিয়ে বাড়ি থেকে তারা ১০/১২ জন মিলে পদ্মা নদীতে গোসল করতে যান।

এসময় একটি ফেরি তাদের পাশ দিয়ে চলে গেলে যে ঢেউয়ের সৃষ্টি হয় এতে প্রথমে আঞ্জুম কিছুটা নদীর ভেতরে চলে যায়। আঞ্জুম যখন নদীর তীব্র স্রোতে ভেসে যাচ্ছিল তাকে উদ্ধার করতে ইমন এগিয়ে যায়। এরপর তারা দুজনই মুহূর্তের মধ্যে নদীর তীব্র স্রোত ও প্রচন্ড ঘুর্ণীপাকের মধ্যে পড়ে তলিয়ে যান।

এদিকে বিয়ের অনুষ্ঠানে এসে নবদম্পতি পদ্মায় ভেসে যাওয়ার ঘটনায় বিয়ে বাড়ির আনন্দ এক নিমিষেই আহাজারিতে পরিণত হয়েছে। স্বজনদের চোখের পানিতে এলাকার পরিবেশ ভারী হয়ে উঠেছে।

গোয়ালন্দ ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার মোঃ আব্দুর রহমান বলেন, গোয়ালন্দ উপজেলার দৌলতদিয়ার আত্মীয় বাড়ী বেড়াতে এসে পদ্মা নদীর ৪ ও ৫নং ফেরিঘাটের মাঝে গোসল করতে গিয়ে তারা নিঁখোজ হয় এমন সংবাদের ভিত্তিতে দুপুরে উদ্ধার অভিযান শুরু করা হয়। তবে স্টেশনে ডুবরী দল না থাকায় ঢাকা থেকে ডুবরী দলকে সংবাদ প্রেরণ করলে তারা ঘটনাস্থলের দিকে রওনা হয়েছেন। তিনি আরো বলেন, তীব্র স্রোতের টানে তারা ভেসে গিয়েছে বেঁচে থাকার সম্ভাবনা ক্ষীণ।

দৌলতদিয়া নৌপুলিশ ফাঁড়ির ওসি মোঃ লাবু মিয়া জানান, খবর পেয়ে স্থানীয় ফায়ার সার্ভিস ও নৌপুলিশ স্পীড বোট ও জেলেদের সহায়তায় উদ্ধার কাজ শুরু করে। নদীতে তীব্র স্রোত থাকায় উদ্ধার কাজে বেগ পেতে হচ্ছে। এছাড়া ঢাকা থেকে ডুবুরী দলকে ডাকা হয়েছে।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)