আপডেট অক্টোবর ১২, ২০১৭

ঢাকা সোমবার, ১ শ্রাবণ, ১৪২৫ , বর্ষাকাল, ১ জিলক্বদ, ১৪৩৯

অপরাধ, রাজশাহী বগুড়ায় ট্রাক যোগে অভিনব কায়দায় পৌনে ৪ মণ গাঁজা পাচার কালে আটক ২

বগুড়ায় ট্রাক যোগে অভিনব কায়দায় পৌনে ৪ মণ গাঁজা পাচার কালে আটক ২

বগুড়ায় ট্রাক যোগে অভিনব কায়দায় পৌনে ৪ মণ গাঁজা পাচার কালে আটক ২

গোলাম রব্বানী শিপন: বগুড়ার শেরপুরে ট্রাক যোগে অভিনব কায়দায় পৌনে ৪ মণ গাঁজা পাচার কালে আন্ত:জেলা মাদক চোরাকারবারীর ২ সদস্যকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলেন, লক্ষীপুর জেলার রামগঞ্জ থানার দক্ষিণ কালিকাপুর গ্রামের মৃত ওহিদুর রহমানের পুত্র হারুন ওরফে ফারুক হোসেন (২৫) ও একই এলাকার বাসিন্দা কামাল হোসেনের পুত্র সোহাগ মিয়া (৩০)। ধৃতদের আটকের পর পুলিশ ব্যাপক জিজ্ঞাসা বাদের এক পর্যায়ে তাদের স্বাীকারোক্তি অনুযায়ী গতকাল বুধবার (১১ অক্টোবর) গভীর রাতে পুলিশ আটক ট্রাকের বডিতে বিশেষ কায়দায় বক্স করে রাখা উল্লেখ্য পরিমাণ গাঁজা গুলো উদ্ধার করে। শেরপুর থানা সূত্রে জানা যায়, গত ১১ অক্টোবর বুধবার ভোর রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শেরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) খান মোঃ এরফানের নেতৃত্বে পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) বুলবুল ইসলাম, এস আই মোঃ আরিফ সহ সংঙ্গীয় ফোর্স ঘটনাস্থলে পৌঁছে (ঢাকা মেট্রো-ম ১১-৩৬৬৯) নং ট্রাকসহ ২ মাদক চোরাকারবারী কে আটক করে। পরে আটককৃতরা ট্রাকে কিছু নেই ট্রাক খালি বলে চ্যালেঞ্জ করে। ওসি খান মো: এরফানের নেতৃত্বাধীন পুলিশ বাহিনীও দেখতে পায় ট্রাকটি খালি। কিন্তু তথ্যদাতা পুলিশের সোর্স নিশ্চিত করে ঐ ট্রাকেই বিপুল পরিমান মাদক মজুদ আছে। সে মোতাবেক শেরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) খান মোঃ এরফানের নেতৃত্বে পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) বুলবুল ইসলাম, এস আই মোঃ আরিফ সহ সবাই ট্রাকের বিভিন্ন স্থানে তল্লাশী চালিয়ে ব্যার্থ হয়। একপর্যায়ে পুলিশের ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে তোপের মুখে আটককৃতরা স্বীকার করে যে, খালি ট্রাকের বডির পাটাতনের নীচে বিশেষ কায়দায় প্রায় ১ ফুট উচ্চতা ও ট্রাকের আয়তনের সমান একটি বক্সে বিপুল পরিমান গাঁজা রয়েছে। পরে রাত আড়াইটার দিকে বগুড়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সোনাতন চক্রবর্তীর উপস্থিতিতে আটককৃতদের মাধ্যমে ট্রাকের বডির নিচে বিশেষ কায়দায় রক্ষিত পাটাতন খুলে গাঁজা গুলো উদ্ধার করা হয়। আটককৃতরা জানায় গাজীপুরের টঙ্গী হতে নাটোরে গাঁ মাদকদ্রব্য আইনে মামলা দায়ের করা হয়। জাগুলো পৌছে দেয়ার উদ্দেশ্যে যাচ্ছিলেন। পরে তাদের বিরুদ্ধে মাদক দ্রব্য আইনে মামলা দায়ের করা হয়।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)