আপডেট অগাস্ট ৯, ২০১৯

ঢাকা মঙ্গলবার, ২৫ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ , হেমন্তকাল, ১২ রবিউস-সানি, ১৪৪১

রাজশাহী বগুড়ায় ৬০ কি:মি: যমুনা নদীর স্রোতের সাথে যুদ্ধ করে অলৌকিক ভাবে বেঁচে গেল বিথী

বগুড়ায় ৬০ কি:মি: যমুনা নদীর স্রোতের সাথে যুদ্ধ করে অলৌকিক ভাবে বেঁচে গেল বিথী

গোলাম রব্বানী শিপন, নিরাপদনিউজ: রাখে আল্লাহ মারে কে! বগুড়ায় দীর্ঘ ৬০ কিলোমিটার যমুনা নদীর তীব্র স্রোতের সাথে যুদ্ধ করে অলৌকিক ভাবে বেঁচে ইতিহাস গড়লেন ছোট শিশু বিথী (৭)। জানা গেছে, বুধবার জামারপুরের দেওয়ানগঞ্জ উপজেলা চুকাইবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদে প্রতিবেশীদের সঙ্গে ভিজিএফের চাল আনতে গিয়েছিল গরীব অসহায় পরিবারের ছোট শিশু কন্যা বিথী। পরে চাল নিয়ে নৌকাযোগে বাড়ি ফেরার পথে রাত ৮টায় তাদের বহনকারী নৌকাটি ২৮জন যাত্রী নিয়ে আকস্মিক ভাবে যমুনা নদীতে ডুবে যায়। এরপর স্থানীয় বাসিন্দা ও ফায়ার সার্ভিসের সহায়তায় ২২জন যাত্রী উদ্ধার হলেও বিথীসহ ৬ জন যাত্রীর কোন সন্ধান মিলছিল না।

বৃহস্পতিবার সকাল ৭টার দিকে চন্দনবাইশা ঘুঘুমারী চর এলাকায় স্থানীয় এলাকাবাসী শিশুটিকে নদীতে ভাসতে দেখে দ্রুত উদ্ধার করে কিনারায় নিয়ে আসেন। শিশুটির শারীরিক অবস্থা নিস্তেজ হয়ে পড়ায় তাকে তাৎক্ষণিক চিকিৎসার জন্য বগুড়ার সারিয়াকান্দি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে দেয়। সেখানে দায়িত্বরত চিকিৎসক প্রাথমিক চিকিৎসায় শিশুটি একটু নড়াচড়া করলে অনেকটা আশঙ্কামুক্ত জানায়। সারিয়াকান্দি থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আল আমিন জানান , দুপুর ১২ টা পর্যন্ত জ্ঞান না থাকায় শিশুটির পরিচয় নিশ্চিত হওয়া যাচ্ছিলো না।

পরে জ্ঞান ফিরলে সে বলে তার নাম মমতা আকতার বিথী, বাবার নাম মঈন উদ্দিন, বাড়ি জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জ। এর পর আবার জ্ঞান হারায় সে। পরে তার পরিবারের সন্ধান করে শিশু উদ্ধারের বিষয়টি জানানো হয়। এদিকে দীর্ঘ ৬০ কিলোমিটার যমুনা নদীর তীব্র স্রোতের সাথে যুদ্ধ করে অলৌকিক ভাবে প্রাণে বেঁচে যাওয়া চাঞ্চল্যকর এঘটনার কথা চারিদিকে ছড়িয়ে পড়লে তাকে এক নজর দেখার জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চত্বরে হাজার হাজার উৎসুক জনতার ভীর জমে।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)