ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট জুলাই ২৩, ২০১৯

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ৮ ভাদ্র, ১৪২৬ , শরৎকাল, ২১ জিলহজ্জ, ১৪৪০

বরিশাল বাউফলে ছেলে ধরা সন্দেহে একজনকে গণপিটুনি

বাউফলে ছেলে ধরা সন্দেহে একজনকে গণপিটুনি

কামরুল হাসান,নিরাপদনিউজ: পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলায় মো. মালেক ফকির(৩৫) নামে এক ব্যাক্তিকে ছেলে ধরা সন্দেহে গনপিটুনি দেয়ার ঘটনা ঘটেছে। সোমবার রাত নয়টার দিকে উপজেলা বাউফল ইউনিয়নের নকুল নায়েবের হাট এলাকায় ঘটে এ ঘটনা। স্থানীয়রা জানায়, বাউফল ইউনিয়নের নকুল নায়েবের হাট এলাকার বাসিন্দা আবুল ডাক্তারের বাড়ির পাশে মালেক ফকিরকে চল (মাছ ধরার এক ধরনের দেশীয় অস্ত্র) হাতে দেখতে পেয়ে আতঙ্কিত হয়ে ছেলে ধরা বলে ডাক চিৎকার দেন আবুল ডাক্তারের স্ত্রী লতিফুল। লতিফুল বেগমের ডাক চিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে এসে মালেক ফকিরকে আটক করে গণপিটুনি দেয়। খবর পেয়ে মালেক ফকির এবং আবুল ডাক্তারের স্ত্রী লতিফুলকে থানায় নিয়ে যায় পুলিশ। পরে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে ঘটনার সত্যতা এবং কোনো অভিযোগ না থাকায় মঙ্গলবার সকালে তাদেরকে ছেড়ে দেয়া হয়। মালেক ফকিরের বাড়ি একই ইউনিয়নের অলিপুরা গ্রামে। তাঁর পিতার নাম আসমান ফকির। বাউফল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা খন্দকার মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, মাছ ধরার জন্য গিয়েছিল মালেক ফকির। ভুল বোঝাবুঝির কারনে এ ঘটনা ঘটেছে। কোনো পক্ষের কোনো অভিযোগ না থাকায় উভয়কেই স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের হাতে তুলে দেয়া হয়েছে।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)