ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৯

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ৩ কার্তিক, ১৪২৬ , হেমন্তকাল, ১৭ সফর, ১৪৪১

ঢাকা ভৈরবে ইউএনও হিসেবে লুবনা ফারজানার যোগদান

ভৈরবে ইউএনও হিসেবে লুবনা ফারজানার যোগদান

মোঃ আলাল উদ্দিন,নিরাপদ নিউজ: ঢাকা বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয় থেকে বদলি করে ভৈরব উপজেলার উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) লুবনা ফারজানা কে কিশোরগঞ্জ জেলার ভৈরব উপজেলার উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) হিসেবে পদায়ন করা হয়েছে। ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার কার্যালয়ের মাঠ প্রশাসন শাখা থেকে গত ৮ সেপ্টেম্বর জারি করা এক প্রজ্ঞাপনে তাঁকে ভৈরব উপজেলার উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) হিসেবে পদায়ন করা হয়।

২০১৫ সালের নভেম্বর থেকে ২০১৯ সালের এপ্রিল পর্যন্ত নরসিংদী জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে প্রথমে সহকারী কমিশনার হিসেবে যোগদান করে বিভিন্ন সময়ে জি.এম. আর.এম. ও সাধারণ শাখা সহ বিভিন্ন সেক্টরে দায়িত্ব পালন করেন। পরে সহকারী কমিশনার থেকে সিনিয়র সহকারী সচিব হিসেবে পদোন্নতি লাভ করে ভূমি অধি গ্রহণ কর্মকর্তা হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ২০১৯ সালে ১৭ এপ্রিল ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার কার্যালয়ে ইউএনও হিসেবে যোগদান করে ৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত এই পদে কর্মরত ছিলেন।

৩০ তম বিসিএস (প্রশাসন) ক্যাডারের মাধ্যমে তিনি ২০১২ সালের ৩ জুন সহকারী কমিশনার হিসেবে জেলা প্রশাসন কার্যালয় মৌলভীবাজারে যোগদান করে দুই বছরের অধিক সময় দায়িত্ব পালন করেন। ২০১৪ সালের অক্টোবরে ঠাকুরগাঁও জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে সহকারী কমিশনার পদে ১ বছর দায়িত্ব পালন করেন।

নিজ জন্মস্থান বিদ্যাগঞ্জ রানী রাজবালা বহুমূখী উচ্চবিদ্যালয় থেকে ১৯৯৯ সালে বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এসএসসি ও ২০০১ সালে ময়মনসিংহ মুমিনুনন্নেচ্ছা সরকারি মহিলা কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করেন। ২০০২-২০০৩ সেশনে পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিএসসি.এজি (অর্নাস) ও এমএস ইন জেনেটিক্স এণ্ড প্লান্ট ব্রিডিং এ স্নাতকোত্তর লাভ করেন।

লুবনা ফারজানা ময়মনসিংহ জেলার সদর উপজেলার কুষ্টিয়া কাবারিয়া কান্দা গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। পিতা আব্দুল লতিফ সরকার ও মাতা মমতাজ বেগম। ২ ভাই ও ২ বোন এর মধ্যে ওনি সবার বড়।

তিঁনি বিসিএস প্রশাসন ক্যাডারের একই ব্যাচের খুলনা জেলার ডুমুরিয়া উপজেলার মোহাম্মাদ শামীম কিবরিয়ার সাথে ২০১২ সালে ১৮ মে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। তিনি বর্তমানে পরিকল্পনা মন্ত্রালয়ের সহকারী পরিচালক পদে কর্মরত আছেন। তাদের পরিবারে ২ বছর ৭ মাসের একটি সন্তান রয়েছে।

এছাড়া তিনি বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডের সাথে জড়িত ছিলেন। অাবৃত্তি ও বই পড়া তার প্রধান পছন্দ। ইউএনও হিসেবে দায়িত্ব পালনে তিনি ভৈরববাসীর সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেছেন।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)