আপডেট ৬ মিনিট ২০ সেকেন্ড

ঢাকা সোমবার, ৬ কার্তিক, ১৪২৬ , হেমন্তকাল, ২১ সফর, ১৪৪১

ঢাকা, সড়ক সংবাদ ভৈরব-কুলিয়ারচর কালী নদীর ওপর নির্মিত জিল্লুর রহমান সড়ক সেতুর উদ্বোধন

ভৈরব-কুলিয়ারচর কালী নদীর ওপর নির্মিত জিল্লুর রহমান সড়ক সেতুর উদ্বোধন

মোঃ আলাল উদ্দিন,নিরাপদনিউজ : ভৈরব-কুলিয়ারচর কালী নদীর ওপর নির্মিত প্রয়াত রাষ্ট্রপতি আলহাজ্ব জিল্লুর রহমান সড়ক সেতুর উদ্বোধন করা হয়েছে। ৭ অক্টোবর সোমবার বিকাল ৫টায় ভৈরব উপজেলার গজারিয়া ইউনিয়নে মানিকদী এলাকায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এই ব্রীজের শুভ উদ্বোধন করেন কিশোরগঞ্জ-৬ (ভৈরব-কুলিয়ারচর) আসনের সংসদ সদস্য ও বিসিবি সভাপতি আলহাজ্ব নাজমুল হাসান পাপন। কালী নদীর ওপর নির্মিত জিল্লুর রহমান সড়ক সেতুটি উদ্বোধন হওয়ায় নদীর পাড়ের বাসিন্দারা আনন্দিত ও উচ্ছ্বাসিত। কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসক মো. সারওয়ার মুর্শেদ চৌধুরীর সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, কুলিয়ারচর গ্রুপের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মুছা মিয়া (সিআইপি), ঢাকা বিভাগের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী সুশংকর চন্দ্র আচার্য্য, আলহাজ্ব নাজমুল হাসান পাপন এর সহধর্মিনী বেক্সিমকো ফার্মা লি. এর পরিচালক রোকসানা হাসান। মূখ্য আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ভৈরব উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব মো. সায়দুল্লাহ মিয়া। এ সময় প্রধান অতিথি আলহাজ্ব নাজমুল হাসান পাপন বলেন, এই সেতু নির্মাণে দাবী ছিল দীর্ঘ কয়েকযুগ যাবত। এই সেতু নির্মাণের ফলে গজারিয়া, সাদেকপুরসহ সাত ইউনিয়নের পাশাপাশি কুলিয়ারচরেরও প্রায় ৫০ হাজার মানুষ ভৈরবে সহজে যাতায়াতের সুবিধা পাবে। ইতিপূর্বে সেতু না থাকায় নৌকা দিয়ে ছাত্র-ছাত্রী ও লোকজন যাতায়াত করতে গিয়ে বিভিন্ন সময় নৌকা ডুবিতে মৃত্যুবরণ করেছে। এই এলাকার মানুষের দীর্ঘদিনের দাবী পুরণের জন্য আমার বাবা চেষ্টা করেছেন। আরও আগেই এই সেতুটি করা সম্ভব হতো। কিন্তু বিএনপি’র আমলে এই সেতুটির কাজ করতে দেওয়া হয়নি। আমি এই সেতুটি নির্মাণে উদ্যোগ নেই এবং আজকে ৭১ কোটি ১৯ লাখ টাকা ব্যয়ে ৫২০ মিটার দৈর্ঘ্য এই সেতুটির কাজ সমাপ্ত হয়েছে। এছাড়াও তিনি আরো বলেন, আগামী আওয়ামী লীগ সম্মেলনে ভৈরব-কুলিয়ারচরে দেখে শুনে নেতৃত্ব তৈরি করা হবে। ত্যাগী নেতাকর্মীদের মূল্যায়ন করে তাদের দলে রাখা হবে। সুসময়ের হাইব্রিড নেতাদের দল থেকে বাদ দিয়ে একটি সুস্থ এবং সুন্দর আওয়ামী লীগ গঠন করা হবে। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, কুলিয়ারচর উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব ইয়াছির মিয়া, ভৈরব উপজেলা নির্বাহী অফিসার লুবনা ফারজানা, কুলিয়ারচর উপজেলা নির্বাহী অফিসার কাউসার আজিজ, ভৈরব উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. আনিসুজ্জামান, উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম সেন্টু, পৌর আওয়ামী লীগ সভাপতি এসএম বাকী বিল্লাহ, সাধারণ সম্পাদক আতিক আহমেদ সৌরভ, , গজারিয়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান গোলাম সারোয়ার গোলাপ, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সভাপতি ফরিদ উদ্দিন খান প্রমুখ। গজারিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক শাহরিয়ার এর সঞ্চালনায় উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ, ছাত্রলীগ, স্থানীয় নেতৃবৃন্দসহ ৬ ইউনিয়নের ইউপি চেয়ারম্যানগণ উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, সারা দেশে যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নয়নের অংশ হিসেবে ভৈরব-কুলিয়ারচর এই দুই উপজেলাবাসীর কয়েক যুগের স্বপ্ন বাস্তবায়নে কালী নদীর ওপর ৫২০ মিটার দৈর্ঘ্যরে একটি সেতু নির্মাণের পরিকল্পনা হাতে নেওয়া হয়। ফলে ৭১ কোটি ১৯ লাখ টাকা ব্যয় ২০১৭ সালের মার্চ মাসে সেতুর নির্মাণ কাজ শুরু করা হয়। দুবছর মেয়াদী সেতুটি খখচলতি বছরের মার্চ মাসে নির্মাণ কাজ শেষ হওয়ার কথা থাকলেও নির্ধারিত সময়ের চেয়ে কিছু সময় বেশি লাগলেও সেতু নির্মাণ সম্পন্ন হয়।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)