ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯

ঢাকা শনিবার, ৭ আশ্বিন, ১৪২৬ , শরৎকাল, ২২ মুহাররম, ১৪৪১

বহির্বিশ্ব, লিড নিউজ শিক্ষার্থী ভিসায় পরিবর্তন আনছে যুক্তরাজ্য

শিক্ষার্থী ভিসায় পরিবর্তন আনছে যুক্তরাজ্য

নিরাপদ নিউজ:  যুক্তরাজ্যের শিক্ষার্থী ভিসা ব্যবস্থায় পরিবর্তন আনতে নতুন একটি প্রস্তাব ঘোষণা করেছে দেশটির স্বরাষ্ট্র দফতর। এর আওতায় স্নাতক শেষ করার পরও দুই বছর দেশটিতে অবস্থান করে কাজ খোঁজার সুযোগ পাবে বিদেশি শিক্ষার্থীরা। গতকাল বুধবার ঘোষিত নতুন প্রস্তাব অনুযায়ী বিদেশি শিক্ষার্থীরা যেকোনও ধরণের কাজ করতে পারবে। প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন বলেছেন, ভিসা ব্যবস্থায় পরিবর্তন আনার ফলে শিক্ষার্থীরা তাদের সম্ভাবনা উন্মুক্ত করতে পারবেন আর যুক্তরাজ্যে ক্যারিয়ার শুরু করতে পারবেন। তবে অভিবাসীদের নিয়ে কাজ করা মাইগ্রেশন ওয়াচ একে পশ্চাদমুখী পদক্ষেপ হিসেবে অভিহিত করেছে।

২০১২ সালে তৎকালীন ব্রিটিশ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী থেরেসা মে’র অধীনে ভিসা ব্যবস্থায় পরিবর্তন আনা হয়। ওই সময়ে নিয়ম করা হয় বিদেশি শিক্ষার্থীদের স্নাতক শেষ করার চার মাসের মাসের যুক্তরাজ্য ছেড়ে যেতে হবে। বুধবার নতুন ঘোষিত প্রস্তাবের মধ্য দিয়ে ওই নিয়ম বদলানো হলো।গত বছর প্রায় সাড়ে চার লাখ বিদেশি শিক্ষার্থী যুক্তরাজ্যে স্নাতক কোর্স শুরুর আবেদন করেছেন। ভিসা ব্যবস্থার নতুন নিয়ম এসব শিক্ষার্থীর ওপরও প্রযোজ্য হবে। ব্রিটিশ কোষাগারের চ্যান্সেলর সাজিদ জাভিদ এক টুইট বার্তায় নতুন এই নিয়মকে সময়োপযোগী বলে আখ্যা দিয়ে বলেছেন কয়েক বছর আগেই ভিসা ব্যবস্থায় পরিবর্তন আনার দরকার ছিলো।

ব্রিটিশ বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর প্রধান নির্বাহী অ্যালিস্টাইর জার্ভিস এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়ে বলেছেন এর মাধ্যমে উপকৃত হবে ব্রিটিশ অর্থনীতি। আর যুক্তরাজ্যকে শিক্ষার প্রথম গন্তব্য নির্ধারণে ভ‚মিকা রাখবে।তবে অভিবাসীদের নিয়ে কাজ করা যুক্তরাজ্যের মাইগ্রেশন ওয়াচের চেয়ারম্যান আল্প মেহমেত বলেছেন, এই সিদ্ধান্ত অবিবেচক সিদ্ধান্ত। আর এত বিদেশি স্নাতক শিক্ষার্থীদের ভীড় বেড়ে যাবে। তিনি বলেন, আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়গুলো রেকর্ড সংখ্যক বিদেশি শিক্ষার্থীদের আকৃষ্ট করছে ফলে শিক্ষার্থী ভিসা অবমূল্যায়ন করে কাজের সুযোগ দিয়ে পেছনের পথ ব্যবহার করার কোনও দরকার নেই।ভারত থেকে যুক্তরাজ্যে যাওয়া শিক্ষার্থী শ্রেয়া শমী বলেন এটা খুবই ভালো পদক্ষেপ। তবে তার জন্য খুবই দুঃখের দিন।

কারণ তার মতো যেসব বিদেশি শিক্ষার্থী যুক্তরাজ্যে অবস্থান করছেন তাদের জন্য এই নিয়ম কাজে আসবে না। শ্রেয়া এখন মাস্টার্স ডিগ্রি সম্পন্ন করছেন। বর্তমান নিয়মের অধীনে চার মাস কাজের সুযোগ পেতে অনেক পরিশ্রম করতে হয়েছে তাকে। তিনি জানান বিদেশি শিক্ষার্থীদের কাজের সুযোগ প্রায় শুন্যের কোঠায় নেমে এসেছে।

এজন্য দায়ী করা হচ্ছে তাদের অনভিজ্ঞতাকে।ব্রিটিশ ছায়া স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ডায়ান অ্যাবোট বলেছেন, লেবার পার্টি সবসময়ই বলে এসেছে স্নাতকদের পড়াশোনা শেষে কাজের সুযোগ পাওয়া উচিত। তিনি বলেন, এর মাধ্যমে তারা আমাদের অর্থনীতি, বিশ্ববিদ্যালয় ও গবেষণায় অবদান রাখতে পারবে আর আমাদের সবচেয়ে মেধাবী ও প্রতিভাবানদের আকৃষ্ট করায় সাহায্য করবে।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)