ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট ৩৮ মিনিট ৪৬ সেকেন্ড

ঢাকা সোমবার, ২৪ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ , হেমন্তকাল, ১১ রবিউস-সানি, ১৪৪১

সাহিত্য শিমু আকতার এর কবিতা: মেহেদি পাতা

শিমু আকতার এর কবিতা: মেহেদি পাতা

মেহেদি পাতা
শিমু আকতার

*******************

ভীষণ প্রিয় ছিল মেহেদির রং,
মেহেদি পাতার গন্ধ ।
মনটা জুড়িয়ে যেত,
যদি গাছে ফুল ফুটতো।
ব্যাকুল হয়ে যেতাম আমি।

ছোটবেলা রংটা একটু হালকা হয়ে গেলে ,
কেঁদে বুক ভাসাতাম ।
আবার মেহেদি গাছের পাশে গিয়ে বায়না ধরতাম।
তোমার রং এত হালকা হয় কেন?
আমার হাতে লেগে থাকো না কেন?

কারো বিয়ে হলেই ,ছুটে যেতাম মেহেদী তলায়।
রাতের আধারে মেহেদি গাছের নিচে গেলে,
ফুলগুলো কেনো যেনো আমার কাছে ডাকত।
তার গন্ধে মাতিয়ে তুলতে আমায়।
আমি ও আমার মতো করে গন্ধ নিতাম ।

ছোট্ট বেলার কথা ,একদিন আমার এক বান্ধবী ছিল ।
সম্পর্কে সে আমার খালা মনি হত ।
হঠাৎ করে শুনতে পেলাম তার নাকি বিয়ে ।
আশেপাশে তখন কোথাও মেহেদি গাছ নেই ।
সবাই বললো কিরে মেহেদী পাগলী তোর মেহেদি কই?
তোর খালার যে বিয়ে মেহেদি ছাড়া কি হবে?

আমি বললাম কিছুক্ষণ অপেক্ষা করো ।
দেখতে থাকো, জাদু দিয়ে মেহেদী নিয়ে আসব ,
ছুটে গেলাম পাশের পাড়ায়।
বিশাল এক মেহেদি গাছ…
গাছটির পাশে যেতেই ,
আমায় ডেকে বলল- আমি জানতাম

তুই আমার কাছে আসবি।
আমি যে তোর ভীষণ প্রিয়!!!

সেই বাড়িতে একটা বুড়ো দাদু ছিল ।
খুব খিটখিটে স্বভাবের,
মেহেদি পাতা কাউকে দিতে চাইত না।
দাদু কে বললাম, আমার খালামনির বিয়ে যে।
একটু মেহেদি পাতা দাও না গো ।
সে বলল না না দেয়া যাবে না।
গাছে হাত দেয়া যাবে না।
বললাম ঠিক আছে, তোমার মেহেদি নিব না।
আমার বন্ধু আমার কাছে ঠিকই যাবে ।

একথা বলতেই,
গাছের ডালপালা গুলো নিচের দিকে ঝুঁকে এল।
অনেকটা মেহেদি পাতা নিয়ে চলে এলাম।
আমাকে টাটা দিয়ে বলল ভালো থেকো……………
আবার এসো………….

অথচ আজ আমার,মেহেদী ফুলের গন্ধ,
মেহেদির রং, মেহেদী পাতা কোনটাই ভালো লাগেনা।
বড্ড বেমানান মনে হয়।
আমার কেন জানি মেহেদির রং

দেখলেই মেজাজ খারাপ হয়ে যায়।
খিটখিটে হয়ে যায়।
ভালো লাগে না।
কষ্ট হয় বুকের ভিতরটা, ফেটে যায় কষ্টে ।
জানিনা কিসের যন্ত্রণা আমায় তাড়া করে ছুটছে।
মেহেদি পাতা কি হয়েছিল তোমার সাথে আমার???
সেই গন্ধটা আমি এখনো নিতে চাই ?
কিন্তু আমার সাথে সেই গন্ধটা আর যেতে চায়?
আমাকে আর আগের মত ভালবাসো না।
আমি এতটাই বেমানান ।

হাতের দিকে তাকালে ,মেহেদির রঙের দেখতে ইচ্ছে করে না,

সাদাটা এখন ভীষণ ভালো লাগে।
তাই হাতের মেহেদি পরিনা,
মেহেদির ছোঁয়া লাগলে কি করে উঠাবো ।
পাগল হয়ে যায়।
কারণ আমি সাদা তে আছি, রঙে নয় ।
ভালো থেকো মেহেদি পাতা।

———————-শিমু

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)