ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট জুলাই ১৪, ২০১৭

ঢাকা রবিবার, ১০ আষাঢ়, ১৪২৫ , বর্ষাকাল, ৯ শাওয়াল, ১৪৩৯

বিনোদন সিনেমা হল কারো বাপের জমিদারি না: ডিপজল

সিনেমা হল কারো বাপের জমিদারি না: ডিপজল

সিনেমা হল কারো বাপের জমিদারি না

নিরাপদ নিউজ: বাংলা চলচ্চিত্র ইন্ডাস্ট্রিতে চলছে একের পর এক সংকট, শুধু সিনেমায় নয়; বরং টেলিভিশনেও চলছে এমন সংকট। সংকট কাটিয়ে উঠতে এবার এফডিসি কেন্দ্রীক সংগঠনগুলোর পাশে টেলিভিশনের বিভিন্ন সংগঠনের নেতারা। টেলিভিশন ও চলচ্চিত্রের বর্তমান সংকট কাটিয়ে উঠতে এফডিসিতে আয়োজিত মতবিনিময় সভায় উপস্থিত হন টেলিভিশন ও চলচ্চিত্র নির্মাতাসহ অভিনয় শিল্পী সংঘের নেতারাও।

মতবিনিময় সভায় সকলে টেলিভিশন ও চলচ্চিত্রের মানুষদের নিয়ে একটি ফেডারেশন গঠনের আহ্বান জানান। সেখানে এমন একটি সংগঠনের প্রয়োজনীয়তার কথা উল্লেখ করে প্রযোজক ও অভিনেতা মনোয়ার হোসেন ডিপজল বলেন, টেলিভিশন ও চলচ্চিত্রের সবাইকে নিয়ে একটা ফেডারেশন করলে আমরা বাঁচতে পারবো। ফিল্মটা থাকবে। ইন্ডাস্ট্রিটা ধ্বংস হবে না। এই ইন্ডাস্ট্রি ধ্বংস করার জন্য ধুম পরিকল্পনা চলছে। এখানেও ইন্ডিয়ান দালাল ঢুকে গেছে।

জাজ মাল্টিমিডিয়ার কর্ণধার আব্দুল আজিজকে ইঙ্গিত করে মনোয়ার হোসেন ডিপজল আরো বলেন, সিনেমা হল কারো বাপের না। একশো সিনেমা হলে প্রজেকটর বসাইছে বলে সিনেমা হল উনার? উনার ইচ্ছা হইলে সিনেমা চলবে, না হইলে চলবে না, এটা বললে হবে না। প্রজেক্টর বসাইছে, যার ছবি যাবে তার ছবিই চালাতে হবে। এটা কারো বাপের জমিদারি না যে, আপনি না করে দিলেন অমুকের ছবি চলবে আর তমুকের ছবি চলবে না। আমিও দেখবো আপনার সিনেমা হলে ছবি চলে কিভাবে?

এরপর নিজেই সিনেমা হলে অন্তত একশো প্রজেক্টর দেয়ার ঘোষণা দিয়ে ডিপজল তার বক্তৃতায় বলেন, সরকার বলছিলো যে ৫০টি সিনেমা প্রজেক্টর দিবে। আমি বলছি, আমি নিজেই একশো হলে প্রজেক্টর দিবো ইনশাল্লাহ্। আর আপনাদের যেকোনো সহায়তায় আমি পাশে আছি।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)