আপডেট অক্টোবর ১০, ২০১৭

ঢাকা সোমবার, ১ শ্রাবণ, ১৪২৫ , বর্ষাকাল, ১ জিলক্বদ, ১৪৩৯

বিনোদন সুখের ঘরে দুখের আগুন ও গুলজারের ২০ বছর

সুখের ঘরে দুখের আগুন ও গুলজারের ২০ বছর

‘সুখের ঘরে দুখের আগুন’ এর ২০ বছর

নিরাপদ নিউজ : বাংলা চলচ্চিত্রের সোনালী যুগের অন্যতম ছবি সুখের ঘরে দুখের আগুন। ইলিয়াস কাঞ্চন, মৌসুমি, দিতি, আলমগীর অভিনিত পরিচালক মুশফিকুর রহমান গুলজার এর ব্যবসা সফল সুপার হিট একটি সিনেমা । এই সিনেমাটির অসাধারন কাহিনি আর ইলিয়াস কাঞ্চন , মৌসুমি এর অসাধারন অভিনয় সহজেই মানুষের মন জয় করে নেয়। সব থেকে বড় কথা ইলিয়াস এবং দিতির মত সিনিয়র শিল্পীদের সাথে এই ছবিটিতে মৌসুমি তার অভিনয় দক্ষতা দিয়ে সমান তালে এগিয়ে যায়। এতে করে কাঞ্চন মৌসুমি জুটি তখন আরও গ্রহন যোগ্যতা পায়। এই ছবির একটি গান, যে জিবনে তুমি ছিলে না, সে জীবন জীবন ত নয় তখন আকাশচুম্বী জনপ্রিয়তা লাভ করে। সিনেমাটি এখনো দর্শক হৃদয়ে ভেসে ওঠে সেই সাথে গুনগুন করে সিনেমার প্রতিটি গান গুলো। সুখের ঘরে দুখের আগুন সিনেমাটি মুক্তি পায় ১৯৯৭ সালে ১০ অক্টোবর। আজ থেকে ঠিক ২০ বছর আগে ১৯৯৭ সালের এই দিনে মুক্তি পেয়েছিল পরিচালক মুশফিকুর রহমান গুলজার এর প্রথম প্রযোজিত ও পরিচলিত ‘সুখের ঘরে দুখের আগুন’ চলচ্চিত্রটি।

তারকাবহুল এই ছবি দিয়ে পরিচালক সমিতির সভাপতি মুশফিকুর রহমান গুলজারের চলচ্চিত্র পরিচালক হিসেবে পথচলা শুরু হয়। এই ছবি মুক্তির ২০ বছরে গুলজার তার প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন-

নিরাপদ নিউজকে তিনি বলেন, আজ আমার প্রথম চলচ্চিত্রটির মুক্তির ২০ বছর পূর্ণ হলো। সব থেকে বড় কথা এই ২০বছরপরও দর্শকদের কাছে সিনেমাটি ভীষনভাবে জনপ্রিয়তা ধরে রেখেছে।

তিনি বলেন, ‘সুখের ঘরে দুখের আগুন’ চলচ্চিত্রটির প্রতিটি শিল্পী কুশলী আমাকে যে ভাবে সহযোগিতা করেছিলেন আমি তা কোন দিন ভুলতে পারবো না। তাদের প্রত্যেকের কাছে আমি চির কৃতজ্ঞ- চির ঋনী।
ইলিয়াস কাঞ্চন, দিতি, মৌসুমী, আলমগীর, গোলাম মুস্তফা, ডলি জহুর, আবুল হায়াত, শর্মিলী আহমেদ, খলিল উল্যাহ খান সহ সকলের কাছে আমার অশেষ কৃতজ্ঞতা। আমার আরো কৃতজ্ঞতা মৌসুমীর পিতা আমার শ্রদ্ধেয় খালুজান মরহুম নাজমুজ্জান মনি’র কাছে। তাঁদের সহযোগিতা না পেলে কোন দিনই হয়তো আমার প্রযোজক ও পরিচালক হয়ে উঠা হতো না। আমার স্বপ্ন স্বপ্নই থেকে যেত। আজ আমার খুব মনে পড়ছে দিতি, গোলাম মুস্তফা ও খালুজানকে। আল্লাহ যেন তাঁদের আত্মাকে শান্তিতে রাখেন, বেহেশত নসিব করেন, অন্তর থেকে এই প্রার্থনা করি।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)