ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট মে ২৮, ২০১৫

ঢাকা শনিবার, ৫ কার্তিক, ১৪২৬ , হেমন্তকাল, ২০ সফর, ১৪৪১

মানবাধিকার সংবাদ সেন্টমার্টিনে নিখোঁজ সাব্বির পাচার হয়ে ইন্দোনেশিয়ায়!

সেন্টমার্টিনে নিখোঁজ সাব্বির পাচার হয়ে ইন্দোনেশিয়ায়!

সেন্টমার্টিনে নিখোঁজ সাব্বির পাচার হয়ে ইন্দোনেশিয়ায়!

সেন্টমার্টিনে নিখোঁজ সাব্বির পাচার হয়ে ইন্দোনেশিয়ায়!

স্নেহাশীষ ঘোষ, ২৮ মে ২০১৫, নিরাপদ নিউজ : গেল বছরের ১৪ এপ্রিল কক্সবাজারের সেন্টমার্টিনে সাগরে নেমে নিখোঁজ হন ঢাকার আহসানুল্লাহ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সাব্বির। সম্প্রতি ইন্দোনেশিয়ার আচেহ প্রদেশে উদ্ধার হওয়া বাংলাদেশিদের মধ্যে একজনকে দেখা গেছে হুবহু সাব্বিরের মত। সাব্বিরের মা শতভাগ নিশ্চয়তা দিয়ে বলেছেন ছবির ওই ছেলেই তার হারিয়ে যাওয়া সাব্বির। সাব্বিরের পরিবার থেকে দাবি করা হয়েছে, সেন্টমার্টিনে নিখোঁজ হওয়ার পর তাকে অপহরণ করা হয়। এরপর তাকে পাচার করে দেয়া হয়েছিল ইন্দোনেশিয়ায়।
সব্বিরের মায়ের দাবি, এতদিনে ছেলেটির ওপর অত্যাচার আর নির্যাতন চালানো হয়েছে। এতে তার চেহারা খানিকটা বিকৃত হয়ে গেছে। তবে তার শোয়ার ধরনটা দেখে আমি শতভাগ নিশ্চিত ছবির ওই ছেলেটিই সাব্বির। পরিবারের অন্য সদস্যরাও একই দাবি করছেন, ছেলেটির শুয়ে থাকার ধরণ সাব্বিরের সঙ্গে হুবহু মিলে যায়। সাব্বিরের বাবা বলেন, আমি সাব্বিরের বাবা। আমি আমার ছেলেকে দেখে অবশ্যই চিনবো। ওর চেহারা দেখে, শুয়ে থাকার ধরণ দেখার পর আমি শতভাগ নিশ্চিত ওইটা আমাদের সাব্বির।
সরকারের কাছে আকুল আবেদন জানিয়ে সাব্বিরের বাবা বলেছেন, ছেলেটির সঙ্গে আমাদের দেখা করিয়ে দেয়ার ব্যবস্থা করে দেয়া হোক। প্রয়োজন হলে আমরা নিজেদের খরচে ইন্দোনেশিয়া যাবো। গিয়ে ওখান থেকে ওকে আমরা আমাদের কাছে নিয়ে আসবো। হারানো সন্তানকে বুকে ফিরে পাওয়ার আশায় স্বপ্ন বুনতে শুরু করেছেন সাব্বিরের মা বাবা। এ ব্যাপারে সরকারের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। তাদের বিশ্বাস সরকার পদক্ষেপ নিলে তাদের ছেলে আবারও তাদের বুকে ফিরে আসবে।

সেন্টমার্টিনে নিখোঁজ সাব্বির পাচার হয়ে ইন্দোনেশিয়ায়!

সেন্টমার্টিনে নিখোঁজ সাব্বির পাচার হয়ে ইন্দোনেশিয়ায়!

সাব্বিরের পরিবারের মত তার বন্ধুরাও সাব্বিরকে ফিরে পাওয়ার আশায় বুক বাঁধছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে এটা নিয়ে সবাই সোচ্চার। সরকারের কাছে সবার একটাই প্রত্যাশা, সাব্বিরের পরিবারের দাবি মেনে পদক্ষেপ নেয়া হোক। আদরের এক সন্তান, একজন প্রিয় বন্ধু, একজন মেধাবী ছাত্র যদি ফিরে আসে আমাদের মধ্যে!
গেল বছরের ১৪ এপ্রিলের স্মৃতি কেউ ভোলেনি। আজও গভীর বেদনার স্পর্শ দিয়ে যায় দিনটি। ওইদিন সেন্টমার্টিনে সাগরের নীল জল কেড়ে নিয়েছিল ঢাকার আহসানুল্লাহ বিশ্ববিদ্যালয়ের চার মেধাবী ছাত্রকে। সে সঙ্গে নিখোঁজ হয় আরো দুই ছাত্র। যাদের মধ্যে ছিল সাব্বির। আমাদের বন্ধু, প্রিয় বন্ধু।
এক বছর পূর্তিতে সাব্বিকে স্মরণ করতে গিয়ে কেঁদেছে ওর পরিবারের সদস্যরা। যে লোনাজলে হারিয়ে গেছে সাব্বির, আমরা সে জল বিসর্জন দিয়েছি। চেয়েছি আমাদের প্রিয় বন্ধু ফিরে আসুক। ওর নিখোঁজের প্রায় সাড়ে ১৩ মাস পর তাকে ফিরে পাওয়ার খুব ইচ্ছে করছে। পৃথিবীতে কত কিছু তো সম্ভব। আবার আসুক না ফিরে আমাদের সেই বন্ধু সাব্বির। যদি ওর মায়ের শূন্যবুকে আমরা ফিরিয়ে দিতে পারতাম ওকে।-বাংলামেইল২৪ডটকম
লেখক: স্নেহাশীষ ঘোষ সাব্বিরের বন্ধু ও ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)