ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট ২ মিনিট ৩৩ সেকেন্ড

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ৪ মাঘ, ১৪২৫ , শীতকাল, ৯ জমাদিউল-আউয়াল, ১৪৪০

নারী ও শিশু সংবাদ, রংপুর স্ত্রীর মর্যাদার দাবিতে স্বামীর বাড়িতে নববধূ সুমির অবস্থান

স্ত্রীর মর্যাদার দাবিতে স্বামীর বাড়িতে নববধূ সুমির অবস্থান

নিরাপদনিউজ : লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ উপজেলায় স্ত্রীর মর্যাদার দাবিতে স্বামীর বাড়িতে অবস্থান করছেন সুমি খাতুন(১৮) নামের এক নববধূ।
বৃহস্পতিবার(১০ জানুয়ারি) লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ উপজেলার কাকিনা ইউনিয়নের চাঁপারতল এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে ।

সুমি খাতুন অভিযোগ করে বলেন,দীর্ঘ দিন ধরে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্কের জেরে গাজীপুরের সখিপুর এলাকায় পালিয়ে গিয়ে ৫মাস আগে পরিবারের কাউকে না জানিয়ে একই ইউনিয়নের চাঁপারতল এলাকার শাহাজানের ছেলে বর রিয়াদের সঙ্গে সুমি বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। ভালোই চলছিলো তাদের সংসার।গত ১১ ডিসেম্বর রিয়াদের বাবা শাহাজাহান ভয় দেখালে রিয়াদ তার বাবার নির্দেশে সুমিকে একা রেখে পালিয়ে যায় ।

পরে সুমি কোনরুপ কূলকিনারা না পেয়ে স্বামীর বাড়িতে চলে আসে। রিয়াদের বাবা শাহাজান প্রভাবশালী হওয়ার কারণে তারা মেয়েটি স্ত্রীর স্বীকৃতি দিতে রাজি হয়নি। তার আগে(৩ জানুয়ারি) সকালে রিয়াদের বাড়িতে গেলে তার উপস্থিতি টের পেয়ে স্বামী রিয়াদ ও তার পরিবার লোকজন বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে যায়। ফলে ৮দিন ধরে স্বামীর বাড়ির গেটে অবস্থান করছেন ওই নববধূ।

সুমি জানায়, এলাকার কিছু প্রভাবশালী লোকের মাধ্যমে ভয়ভীতি দেখিয়ে আসছে অনশনরত সুমি ও তার দরিদ্র বাবা মোজাম্মেলকে । এর মধ্যে স্বামীর সঙ্গে সাথে অনেকবার যোগাযোগ করার চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়েছে সুমি।

সুমি আরো বলেন,(রিয়াদ) আমাকে ‘স্ত্রী’ বলে অস্বীকার করছে। তাই আমি তার বাড়িতে স্ত্রীর অধিকার নিয়ে অবস্থান করছি। স্ত্রীর মর্যাদা না পাওয়া পর্যন্ত এ বাড়িতেই অবস্থান করবো। স্ত্রীর মর্যাদা না পেলে প্রয়োজনে আমি এখানে আত্মহত্যা করবো।

এ বিষয়ে কাকিনা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বিষয়টি হস্তক্ষেপ করলে তিনি সমাধান দিতে ব্যর্থ হয়েছেন। ,ইউপি সদস্য আতাউজ্জামান রন্ঞ্জু বলেন, দরিদ্র পরিবারের মেয়েটি যেনো স্ত্রীর স্বীকৃতি ফিরে পায়। সে জন্য এলাকাবাসী কে এগিয়ে আসতে হবে।

ইউপি সদস্য পাইরুল ইসলাম হড্ডু বলেন, আমরা সমাধানের চেষ্টা চালিয়ে ব্যর্থ হয়েছি।এলাকাবাসী এর সুষ্ঠ সমাধান চায়। কালীগঞ্জ থানা’র এসআই সাইদুল হক বিষয়টি প্রাথমিক ভাবে তদন্ত করে ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)