ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট নভেম্বর ২৫, ২০১৯

ঢাকা সোমবার, ২৪ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ , হেমন্তকাল, ১১ রবিউস-সানি, ১৪৪১

ক্রিকেট ‘ঘরোয়া ক্রিকেটে মনযোগ দিয়ে লাভটা হবে কী’

‘ঘরোয়া ক্রিকেটে মনযোগ দিয়ে লাভটা হবে কী’

নিরাপদ নিউজ: ভারতের মাটিতে টেস্ট ফরম্যাটে লজ্জাজনক পারফর্ম করে ইনিংস হারসহ হোয়াইটওয়াশের লজ্জা পেয়েছে বাংলাদেশ দল। এর চেয়েও সবাইকে বিস্মিত করেছে বড় বড় তারকাদের পাড়ার ক্রিকেটারদের মতো পারফরমেন্স। ক্রিকেটাররা মিডিয়ায় মুখ দেখাতে চাচ্ছেন না। দেশে ফিরছেন বিচ্ছিন্নভাবে, অনেকটা লুকিয়ে। তবে আজ দেশে ফিরে গণমাধ্যমের মুখোমুখি হতেই হয়েছে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনকে। তিনি নিজেও যারপরনাই হতাশ। সাংবাদিকদের বলেছেন টেস্টে উন্নতি করা নিয়ে চিন্তাভাবনার কথা।

টেস্টে উন্নতি করতে হলে ঘরোয়া ক্রিকেটে উন্নতি করতে হবে- এটা প্রতিষ্ঠিত সত্য কথা। কিন্তু বাংলাদেশের ঘরোয়া ক্রিকেটে সেই পরিচিত স্পিন উইকেট তৈরি করা হয়। করা হয় ফিক্সিং। কিন্ত এসব মানতে নারাজ পাপন, ‘এক ঘরোয়া ক্রিকেটে মনযোগ দিয়ে লাভটা হবে কী? আমরা যে ঘরোয়া ক্রিকেট খেলছি এখন, সেখানে তো স্পোর্টিং উইকেট করছি, বাউন্সি উইকেট করছি পেসারদের জন্য। এখন একটা আন্ডার নাইন্টিন টিম সিরিজ খেলছে। আবার ইমার্জিং টিম কাপ খেলছে। ন্যশনাল টিম নাই। তাহলে যে সমস্ত বোলার আছে, এদের বিরুদ্ধে ব্যাটিং করে এরা কী শিখবে? শুধু পিচ তৈরি করে তো হবে না। সেই মানের বোলারও লাগবে।’

ঘরোয়া ক্রিকেটে পেসবান্ধব উইকেট তৈরির বিষয়ে বিসিবি সভাপতি আরও বলেন, ‘এখন মানে কী? আগের কথা বলেন….। এখন ঘরোয়া ক্রিকেটে কী সমস্যা? এখন পেসাররা উইকেট নিচ্ছে। আগে হয়নাই সে জন্য….। এখন আমরা করছি এবং পেসাররা তো সুবিধা পাচ্ছেই। ম্যাক্সিমাম সুবিধা তো পেসাররাই পাচ্ছে। স্পিনাররা তো আর ডমিনেট করছে না। ….সমস্যা তো আছে ডেফিনিটলি। আমরা সেটা জানি। তবে ভেবেছিলাম এতদিনে চেঞ্জ আসবে, কিন্তু আসেনি। যে কারণে এখন আমাদের অবশ্যই টেস্ট ক্রিকেট নিয়ে নতুন করে ভাবতে হবে। আমরা একটা প্ল্যান করেছি। অচিরেই সেটা জানতে পারবেন।’

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)