ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট অগাস্ট ২৪, ২০১৯

ঢাকা বুধবার, ২৬ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ , হেমন্তকাল, ১৩ রবিউস-সানি, ১৪৪১

অপরাধ, রাজশাহী ধুনটে জমি নিয়ে সংঘর্ষে আহত ৭

ধুনটে জমি নিয়ে সংঘর্ষে আহত ৭

কারিমুল হাসান লিখন, নিরাপদ নিউজ: বগুড়ার ধুনট উপজেলায় জমির দখল নিয়ে সহিংস ঘটনা ঘটেছে। এতে দু’পক্ষের অন্তত ৭জন আহত হয়েছে। শনিবার সকাল ৯টায় এলাঙ্গী ইউনিয়নের নলডাঙ্গা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, নলডাঙ্গা গ্রামের মৃত নজর আলী আকন্দের ছেলে আলী আকন্দের সাথে একই গ্রামের মৃত মফিজ উদ্দিনের ছেলে আবু বক্করের মধ্যে দীর্ঘদিন যাবত জমিজমা নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। বিবাদমান জমি নিয়ে শুক্রবার ধুনট থানায় একটি সালিশী বৈঠক হয়। কিন্তু বৈঠকে বিরোধ নিস্পত্তি হয়নি। শনিবার সকাল ৯টায় নলডাঙ্গা ঈদগাহ মাঠের পশ্চিমে বিরোধপূর্ণ জমিতে আবু বক্করের লোকজন দু’টি পাওয়ার টিলার মেশিন দিয়ে চাষ শুরু করে। এ ঘটনায় আলী আকন্দের লোকজন তাদের বাঁধা দিতে গেলে সহিংস ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে ধুনট থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন। এতে উভয় পক্ষের ৭জন আহত হয়েছে।

আহতরা হলেন, আলী আকন্দের পক্ষের নলডাঙ্গা গ্রামের ছলিম উদ্দিনের স্ত্রী বুদি খাতুন (৪৫), জামাল উদ্দিন আকন্দের স্ত্রী চায়না খাতুন (৪০), তার ছেলে কলেজ ছাত্র মিজানুর রহমান (২২) ও মওলা বক্সের ছেলে রানা বাবু (২০) এবং অপর পক্ষের আবু বক্করের ছেলে মিঠু আকন্দ (২৬), মোজাম্মেল হক আকন্দের মেয়ে পিয়ারা খাতুন (৫০) ও ময়ান আকন্দের ছেলে আলমগীর হোসেন (৩০)। আহতদের মধ্যে বুদি খাতুন ও চায়না খাতুনের অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় তাদের বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে এবং অন্যদের ধুনট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

কৃষক আলী আকন্দ অভিযোগ করেন, জমি নিয়ে আদালতে মামলার শুনানী শেষে আমার পক্ষে রায় হয়েছে। ঈদের মধ্যে জমিতে কালাই চাষ করি। অপরপক্ষ আপোষের নামে থানায় বসেও আপোষ করেনি। হঠাৎ করে শনিবার সকালে মারামারি করার উদ্দেশ্যে লাঠিসোঠা ও লোকজন নিয়ে জমি দখল করতে আসে। আমরা বাঁধা দিতে গেলে কয়েকজন মেরে আহত করেছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

ধুনট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ইসমাইল হোসেন বলেন, শনিবার সকালে নলডাঙ্গা গ্রামে বিরোধপূর্ণ জমির দখল নিয়ে দু’পক্ষের মধ্যে সহিংস ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেছে। লিখিত অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)