ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট ২৯ মিনিট ২৭ সেকেন্ড

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২০ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ , হেমন্তকাল, ৭ রবিউস-সানি, ১৪৪১

অপরাধ, খুলনা বাড়িতে ছাগল যাওয়াকে কেন্দ্র করে নারীকে গাছে বেঁধে নির্যাতন

বাড়িতে ছাগল যাওয়াকে কেন্দ্র করে নারীকে গাছে বেঁধে নির্যাতন

নিরাপদ নিউজ : বাড়িতে ছাগল যাওয়াকে কেন্দ্র করে যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলায় এক নারীকে গাছে বেঁধে নির্যাতন করা হয়েছে। গত ১২ নভেম্বর ঘটনাটি ঘটলেও গতকাল বুধবার রাতে এ নিয়ে ঝিকরগাছা থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। থানায় অভিযোগ দেওয়ার পরই বিষয়টি জানাজানি হয়।

অভিযোগ থেকে জানা যায়, ১২ নভেম্বর সকালে রেহেনা পারভীনের একটি ছাগল প্রতিবেশী রফিকুল ইসলামের বাড়িতে যায়। এ নিয়ে রফিকুলের স্ত্রী কমলা খাতুনের সঙ্গে রেহেনা ও তার বোন নূর জাহানের বাকবিতণ্ডা শুরু হয়।

একপর্যায়ে প্রতিবেশী তাইজুল ইসলাম, তার স্ত্রী শাহিনুর খাতুন, ছেলে জিয়াউর রহমান ও ছেলের স্ত্রী ফাইমা খাতুন, নুরুন্নবীর স্ত্রী সুফিয়া খাতুন ও তার ছেলে শরিফুল ইসলাম, মফিজুর রহমানের স্ত্রী আমেনা খাতুন, শরিফুল ইসলামের স্ত্রী সেলিনা খাতুন, মফিজুর রহমানের ছেলে রেজাউল ইসলামসহ কয়েকজন রেহেনা পারভীনকে গাছের সঙ্গে বেঁধে বেধড়ক পেটান।

রেহেনা পারভীনের ছোট ভাই এমএম নবী বলেন, ‘আমার বড় ভাই গোলাম মোস্তফার সঙ্গে জমাজমি ও টাকা পয়সা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে তারই ইন্ধনে বোনকে গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতন করেছে তারা। এ ঘটনায় ঝিকরগাছা থানায় লিখিত অভিযোগ দেওয়া হয়েছে।’

স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) সদস্য সাইফুল ইসলাম বলেন, ‘ওই দিনই বিষয়টি জানতে পেরে ঘটনাস্থলে গিয়ে রেহেনা পারভীনকে উদ্ধার করে ঝিকরগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠাই। তবে বিষয়টি স্থানীয়ভাবে মীমাংসার চেষ্টা করা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে থানায় অভিযোগ দেওয়ায় মীমাংসা করা সম্ভব হয়নি।’

এ বিষয়ে ঝিকরগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোশারফ হোসেন বলেন, ‘বুধবার রাতে অভিযোগটি হাতে পেয়েছি। নির্যাতনকারীর মধ্যে রেহেনার বড় ভাই ও ভাবি রয়েছেন। বিষয়টি তদন্ত করে দেখব।’

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)