ব্রেকিং নিউজ
বাংলা

আপডেট ১৪ মিনিট ৪৭ সেকেন্ড

ঢাকা শনিবার, ১৭ ফাল্গুন, ১৪২৬ , বসন্তকাল, ৪ রজব, ১৪৪১

মতামত মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় দুই বন্ধুকে হারিয়ে এক পাঠকের আকুতি….

মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় দুই বন্ধুকে হারিয়ে এক পাঠকের আকুতি….

d20
নিরাপদ নিউজঃ যারা সড়কে মোটর সাইকেল চালান তাদের কাছে আমার অনুরোধ দয়াকরে আমার এই লেখাটি আপনারা পড়বেন এবং আমার অনুরোধগুলো মেনে চলার চেষ্টা করবেন।
আমাদের এলাকার ঘটনা । কিছুদিন আগে জানুয়ারী মাসের ১৯ তারিখ দিনটি ছিলো সোমবার বিকেল ঠিক ৩ টার দিকে আমাদের এলাকায় একটি ভয়াবহ মোটরসাইকেল দুর্ঘটনাটি ঘটে। আর সেই দুর্ঘটনায় আমি আমার বন্ধুদের মধ্যে থেকে একজন ভালো বন্ধু হারিয়েছি আর একজন ছিলেন আমাদের অনেক আদরের ছোট ভাই। তারা দুজনেই আমাদের ছেড়ে চলে গেছে দূরে অনেক দূরে যেখান থেকে কেউই কখনো ফিরে আসে না। রাজন আর মোরশেদ এই দুই জন আমাদের রেখে চলে যায় না ফেরার দেশে । এই দুইজন মানুষ গত ১৯ তারিখে একটি বাসের সঙ্গে তাদের বাইক ধাক্কা লাগে, ছোট ভাই মোরশেদ সেখানে মারা যায়, আর একজন প্রিয় বন্ধু রাজনকে হাসপাতালে নিতে নিতে রাস্তায় মারা যান ।
তাদের এই চলে যাওয়াটা আমাদের এলাকার মানুষজন কেউই মেনে নিতে পারছে না। আমাদের কাছে এখন কান্না করা ছাড়া আর কিছুই করার নেই। আমরা হাজার চেষ্টা করলেও তাদেরকে আর দেখতে পারবো না। হাজার চেষ্টা করলেও তাদের বাবা, মা তাদের সন্তানকে বুকে জড়িয়ে ধরতে পারবে না। যে মায়ের কোল খালি হয়, সেই মা ই জানে যে সন্তান হারানোর বেদনা কতটা কষ্টের। এইসব কথা বলার মানে এই যে আমরা যারা বাইকার, কিছু সময় আনন্দ করতে গিয়ে নিজের জীবন বিসর্জন দেওয়ার মত ভুল যাতে না করি। কিছুটা সময় নিয়ে সুন্দর করে বাইক চালিয়ে গেলে আমাদের কোনও সমস্যা হবে বলে আমার মনে হয় না। আমাদের কোনো অধিকার নেই একটা মায়ের কোল খালি করার। আমি নিজেও প্রতিজ্ঞা করছি সব সময় মাথা ঠান্ডা রেখে আস্তে ধীরে বাইক চালিয়ে যাবো। কারন সময়ের চেয়ে জীবনের মূল্য অনেক বেশি। আর একটা কথা অবশ্যই মনে রাখা প্রয়োজন একটি দুর্ঘটনা সারা জীবন কান্না। আপনাদের সবার কাছে আমার অনুরোধ আপনরা ড্রাইভিং করার সময় অবস্যই সাবধানে সড়ক পথে চলবেন। অবস্যই ট্রাফিক আইন মেনে চলবেন। এমন দুর্ঘটনা আমাদের কারোই কাম্য নয়….। ( নিরাপদ নিউজ.কমের একজন পাঠক,
মেহেদি হাসান অভি)

পাঠকের মন্তব্য: (পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য কর্তৃপক্ষ কোন ক্রমে দায়ী নয়)