English

30 C
Dhaka
বৃহস্পতিবার, মে ২৬, ২০২২
- Advertisement -

জাকির হত্যার ৫দিন পেরিয়ে গেলেও কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ: ইউনিয়নবাসীর মানববন্ধন

- Advertisements -
Advertisements

ঘটনার ৫দিন পেরিয়ে গেলেও হত্যা মামলার কাউকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ। এতে ফুঁসে উঠেছে পুরো রামেশ্বরপুর ইউনিয়নবাসী। ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশ হিসেবে সোমবার বগুড়া গাবতলীর জাগুলি বাজারে রামেশ্বরপুর ইউনিয়নবাসীর উদ্যোগে মানববন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়। এ ব্যাপারে গাবতলী মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জামিরুল ইসলাম বলেন, জাকির হত্যা মামলার আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন নিহত জাকির হোসেন জাকিরের (৩৮) স্ত্রী শাপলা খাতুন, জাকিরের বৃদ্ধা ষাটোর্ধ মা রাবেয়া বেগম, জাগুলি গ্রামের ২নং ওয়ার্ডের নব-নির্বাচিত ইউপি সদস্য ডাঃ সাহিদুল ইসলাম, স্থানীয়দের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সাইফুল ইসলাম, হাফেজ শাহিন আলম, মোকলেছার রহমান, মুকুল শেখ ও মিম আকতার। বক্তারা সবাই জাকির হত্যার মুল নায়ক সাবেক ইউপি সদস্য প্রার্থী ফেরদৌস হোসেন মিঠুর (ফুটবল মার্কা) ফাঁসি দাবী করেন।

Advertisements

উল্লেখ্য, গত ৫ই জানুয়ারি বুধবার গাবতলী উপজেলার ৯টি ইউনিয়নে ৫ম ধাপের ইউনিয়ন পরিষদের ভোটগ্রহণ চলছিলো। ভোটগ্রহণ চলাকালে দুপুর ২টায় রামেশ্বরপুর ইউনিয়নের জাইগুলি হাইস্কুল ভোট কেন্দ্রের বাইরে ইউপি সদস্য প্রার্থী ফেরদৌস হোসেন মিঠু ও তার দলবল পূর্বের ক্ষোভের জের ধরে জাইগুলি গ্রামের মৃত নঈম উদ্দিন ওরফে লয়া মিয়ার ছেলে ফিন্যালশিয়াল অলনাইন সাংবাদিক ও বগুড়ার নিরাপদ সড়ক চাই এর সদস্য জাকির হোসেন জাকিরের মাথায় ঘাড় ও কোমরে রামদার দিয়ে এলোপাতারিভাবে কুপিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনায় জাকিরের স্ত্রী শাপলা খাতুন বাদী হয়ে গত ৬ই জানুয়ারি রাতে জাইগুলি গ্রামের ২নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য ফেরদৌস হোসেন মিঠুকে প্রধান করে ১১জনের নাম উল্লেখ এবং ৫/৬জনকে অজ্ঞাত আসামী করে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে।

সাবস্ক্রাইব
Notify of
guest
0 মন্তব্য
Inline Feedbacks
View all comments
Advertisements
সর্বশেষ
- Advertisements -
এ বিভাগে আরো দেখুন