ব্রেকিং নিউজ

আপডেট জানুয়ারি ২২, ২০২০

ঢাকা বুধবার, ২৭ মে, ২০২০, ১৩ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ , গ্রীষ্মকাল, ৩ শাওয়াল, ১৪৪১

কেরালার লাল পাহাড়ের সৈকতের সৌন্দর্য্য

জামাল

নাসিম রুমি, ২২ জানুয়ারি ২০২০, নিরাপদ নিউজ : ভারতের কেরালা রাজ্যের পাহাড় সমুদ্র চা-বাগান লেক ও র্ঝনা আমাকে সর্বদা হাতছানি দেয়। তাই দুই বার আমার কেরালা সফরে যাওয়া হয়েছিল। এক কথায় কেরালা অতুলনীয়। এক বার আমি ভারকালা সমুদ্রের পাহাড়ের উচুতে হিলটপ হোটেলে অবস্থান করেছিলাম। হিলটপ হোটেলের ভিউ পয়েন্ট থেকে সমুদ্র অপরূপা। কেরালার রাজধানী ত্রিবান্দ্রম থেকে মাত্র ৪০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত। কেরালা রাজধানী ত্রিবান্দ্রমে গেলে পর্যটকরা অবশ্যই ভারকালা সৈকতে অবশ্যই ভ্রমন করে থাকেন। কেননা এমন লাল পাহাড় ঘেরা, সৈকত ভারতে আর কোথায় নেই। এখানে বিদেশী পর্যটকদের সংখ্যাই বেশী। কেরালের অনন্যসুন্দর এক সাগরবেলা ভারকালা বা ওয়ারকালা। একদিকে খাড়াই লাল পাহাড় আর তার নীচ দিয়ে আরবসাগরের অনন্ত যাওয়া-আসা। লাল পাহাড়ের গায়ে সবুজের চিকন আঁকা। একঝলকে দেখলে মনে হবে ছোট্র একটুকরো বিদেশ। ভারকালা সৈকতর দুটি অংশ পাপনাশম আর ক্লিফটপ দুটির অবস্থানই পাশাপাশি পায়ে হেঁটেই এক সৈকত থেকে আর-এক সৈকতে যাওয়া যায়।

ভারকালা সৈকতে লেখক, পর্যটক ও সাংবাদিক নাসিম রুমি

নৈসর্গিক শোভা বিখ্যাত করে তুলেছে এই ভারকালাকে। কেরালা মানেই প্রকৃতির সৌন্দর্য ছড়িয়ে -ছিটিয়ে বিলানো রয়েছেন প্রকৃতির মাঝেই। ভারকালা বিচে গেলে তারই প্রতিচ্ছবি মেলে। সোনালি বালির উপর রোদের রক্তিম আভা ভারকালা বিচের এক আলাদা সৌন্দর্য। ভারকালা থেকে ১১ কিলোমিটার দূরে পাহাড়মাথায় ভারকালা প্র¯্রবণ। এরই কাছে পাপনাশম বিচ। ভারকালার সর্বাপেক্ষা খ্যাতি এই বিচের জন্য। এই বিচ ঘেঁষেই মাউন্টেন ক্লিফ। নির্জনতা পিয়াসিরা চলে যেতে পারেন পাহাড়ের উত্তরপ্রান্তে থিরুভামবাড়ি সৈকতে। নর্থ ক্লিফ থেকে নেমে এলেই পাবেন এ্ই নিরালা সৈকত।

ভারকালার নিরিবিলি সৈকতে

প্রতিবছর ১৫ মার্চ থেকে শুরু ১০ দিনব্যাপী ভারকালা উৎসব। ভারকালা অপর দ্রষ্টব্য প্রায় ২০০ একর জায়গা নিয়ে শিবগির মাঠ। ঘুরতে পারনে ভারকালা থেকে ১০ কিলোমিটার দূরে কাপ্পিল সৈকত ও পারাভুর হ্রদ। পারাভুর হ্রদে ব্যাকওয়াটার বোটিংয়ের সুবিধা এছাড়াও অন্যান্য দ্রষ্টব্যের মধ্যে রয়েছে শতাধিক বছরের প্রাচীন সুড়ঙ্গ, সারদা মাঠ, ন্যাচারাল কিয়োর সেন্টার। প্রকৃতি ভারকালা ক্লিফটপ থেকে সূর্যাস্তের দৃশ্য অসাধারণ। তাই বিকেলটা রাখুন রমণীয় ক্লিফপের জন্য।

কিভাবে যাবেন:
কলকাতা থেকে একাধিক ট্রেন কেরালা রাজধানী তিরুবনন্তপুরম যাওয়া যায়।
কিভাবে যাওয়া
তিরুবনন্তপুরম থেকে বাসে চেপে ভারকালা হেলিপ্যাড বা ভারকালা বিচ আসতে ভাড়া নেবে ৮০ টাকা
থাকবেন:
ভারকালায় হোটেল গুলির অবস্থান হেলিপ্যাড সংলগ্ন ক্লিফটপে ও পাপনাশম সৈকত-লাগোয়া অঞ্চলে। উল্লেখযোগ্য হোটেলর মধ্যে রয়েছে পঞ্চবনী বিচ রিসর্ট ভাড়া ১৫০০থেকে ২০০০ টাকা। রাজ প্যালেস ভাড়া ১,৫০০ ১০০০ টাকা এস এস বিচ রিসর্ট ভাড়া ২০০০, ৩,৫০০ টাকা।

মন্তব্য করুন

Please Login to comment
avatar
  Subscribe  
Notify of