ব্রেকিং নিউজ

আপডেট মে ৩০, ২০২০

ঢাকা বুধবার, ৩ জুন, ২০২০, ২০ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ , গ্রীষ্মকাল, ১০ শাওয়াল, ১৪৪১

উপজেলা চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে খুন-ধর্ষণ সহ লুটপাটের অভিযোগ

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

নিরাপদ নিউজ

বগুড়ার নন্দীগ্রামে আশ্রয়ণ প্রকল্পের বাসিন্দাদের খুন, ধর্ষণ ও পুকুরের মাছ লুটপাটের হুমকির অভিযোগে উপজেলা চেয়ারম্যান রেজাউল আশরাফ জিন্নাহর বিরুদ্ধে মানববন্ধন করেছে ভুক্তভোগীরা।

শনিবার (৩০ মে) দুপুরে স্থানীয় বাসষ্ট্যান্ডে বঙ্গবন্ধু চত্বরের সামনে অবস্থান নেন উপজেলার বুড়ইল ইউনিয়নের চাপিলাপাড়া আশ্রয়ণ প্রকল্পের অর্ধশত বাসিন্দা। আশ্রয়ণ প্রকল্পের সভানেত্রী মোসলেমা বেগমের নেতৃত্বে মানববন্ধনে বক্তৃতা দেন প্রায় ২০জন নারী।

তারা বলেন, দীর্ঘদিন ধরে মারধর করে আশ্রয়ণ প্রকল্পের পুকুরের মাছ লুটপাট করে খাচ্ছে উপজেলা চেয়ারম্যান ও তার লোকজন। আশ্রয়ণ প্রকল্প থেকে তাড়িয়ে দেয়ার হুমকি সহ ঘরে ঢুকে নারীদের ধর্ষণ এবং খুন করার হুমকি দিচ্ছে। চেয়ারম্যানের ক্যাডার দালাল আশরাফ নামে পরিচিত এক ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতা বারবার হুমকি দিচ্ছে।

আশ্রয়ণ প্রকল্পের সভানেত্রী মোসলেমা বেগম বলেন, আশ্রয়ণ প্রকল্প আমাদের এবং পুকুরও আমাদের। মাছ আমরা ছেড়েছি, আমরাই পুকুরে মাছ চাষ করব। জান থাকতে এই পুকুরের মাছ কাউকে নিতে দেব না। আমরা গরিব বলে কি প্রশাসন আমাদের কথা শুনবে না? আশ্রয়ণ প্রকল্পের নারীদের মারধর করা হয়, খুন-ধর্ষণের হুমকি দেয়, আমাদের পুকুর অন্যায়ভাবে দখল করে। কিন্তু আমরা গরিব, নিরুপায়। দেয়ালে আমাদের পিঠ ঠেঁকে গেছে, আমরা প্রতিকার চাই।

অভিযোগ প্রসঙ্গে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান রেজাউল আশরাফ জিন্নাহ বলেন, সব অভিযোগ মিথ্যা। আশ্রয়ণ প্রকল্পের বাসিন্দারাই আমাকে হুমকি দিচ্ছে। আমি বৈধভাবে পুকুর দখলে রেখেছি। সরকার দলের কতিপয় নেতারা আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছে।

এপ্রসঙ্গে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোসা. শারমিন আখতার বলেন, মানববন্ধন করেছে শুনেছি। তবে কেউ এখনো লিখিত অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

মন্তব্য করুন

Please Login to comment
avatar
  Subscribe  
Notify of