ব্রেকিং নিউজ

আপডেট ৬ মিনিট ৩৪ সেকেন্ড

ঢাকা শনিবার, ৪ জুলাই, ২০২০, ২০ আষাঢ়, ১৪২৭ , বর্ষাকাল, ১২ জিলক্বদ, ১৪৪১

ওয়েব প্ল্যাটফর্ম ও ইউটিউবে প্রদর্শিত অশ্লীল নাটক প্রদর্শণ, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিদের তীব্র প্রতিবাদ অব্যাহত

অনলাইন ডেস্ক

নিরাপদ নিউজ

সাম্প্রতিক সময়ে ওয়েব প্ল্যাটফর্ম ও ইউটিউবে প্রদর্শিত অশ্লীল নাটক সম্পর্কে বিশিষ্ট জনদের অভিমত সম্পর্কিত বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদটি সাংস্কৃতিক অঙ্গনের মানুষের মনে আশার সঞ্চার করেছে । বিশিষ্টজনদের এই অবস্থানকে তারা স্বাগত জানিয়ে বলেছেন—শুরু থেকেই আমরা এই অশ্লীলতার বিরুদ্ধে তীব্র প্রতিবাদ জানিয়ে বিভিন্ন সামাজিক মাধ্যম ও গণমাধ্যমে আমাদের অবস্থান তুলে ধরেছি। এর পরিপ্রেক্ষিতে অশ্লীল কনটেন্ট নির্মাতাদের পক্ষাবলম্বনকারীরা বিভিন্নভাবে প্রতিবাদকারীদের হেয় প্রতিপন্ন করাসহ সামাজিক ভাবে হেয় করার চেষ্টা করেছে! আমরা এসকল কর্মকান্ডেরও তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি। পাশাপাশি দেরীতে হলেও বিশিষ্টজনদের এগিয়ে এসে প্রতিবাদের সাথে একাত্ম হওয়ায তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।আমরা ওয়েব প্ল্যাটফর্মের পক্ষে কিন্তু অশ্লীলতার বিপক্ষে ।

ওয়েব প্ল্যাটফর্ম ও ইউটিউবে প্রদর্শিত অশ্লীল নাটক সম্পর্কে বিশিষ্টজনদের পাশাপাশি আরও যারা অভিমত ব্যক্ত করেছেন তারা হলেন মালেক আফসারী, কায়েস চৌধুরী, অরুণা বিশ্বাস, আহসানুল হক মিনু, শহীদ রায়হান, মুজিবুর রহমান মুজিব, সিদ্দিকুর রহমান, শহিদ আলমগীর, রেজাউল হক রেজা, এহসানুর রহমান, সাইফ মাহমুদ, কাজী ইলিয়াস কল্লোল, এম শাখাওয়াত হোসেন, মাসুদ মহিউদ্দিন, জুয়েল মাহমুদ, ফিরোজ খান, সুমনা সোমা, আহমেদ মনা, নাবিলা আলম পলিন, নাজমুল হুদা নাজিম, হাবিবুল ইসলাম হাবিব, আখতার ফেরদৌস রানা, কায়সার আহমেদ, নজরুল কোরেশী, ফেরারী অমিত, ফিরোজ শাহী, কাজী সোহাগ, একেএম শামসুদ্দোহা, মাসুদ জামান, মিজানুর রহমান, রফিকুল্লাহ সেলিম, দীপু ইমাম, আশফাকুর রহমান আশিক, খন্দকার শাহ আলম, আব্দুল আজিজ, ইদ্রিস হায়দার, জহির আহমেদ, স্বপন সিদ্দিকী, এস এম কামরুল বাহার, কামাল হোসেন বাবর, সৈয়দ অহিদুজ্জামান ডায়মন্ড, মাসুদ সেজান, সঞ্জিত সরকার লিটু, জিনাত হাকিম, মঞ্জুরুল আলম, জ্যোতিকা জ্যোতি, পীযুষ দ্রাবিড় ও অনিক ইসলাম।

বিবৃতিতে তারা বলেন, সাম্প্রতিক সময়ে কিছু ইউটিউব এবং ওয়েব প্ল্যাটফর্মে কুরুচিপূর্ণ নাটক পরিবেশন করে আসছে। এই নাটকগুলির মধ্যে কাহিনীর প্রয়োজনে নয় একেবারেই বিকৃত রুচিসম্পন্ন নাটক নির্মাণ করে বিবেকবান ও সচেতন দর্শকদের মধ্যে ব্যাপক প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি করেছে। আমরা এ ধরনের কাজের তীব্র নিন্দা জানাই। আমরা মনে করি, এইসব নাটক ওয়েবসাইট ও ইউটিউবে প্রদর্র্শিত হয়ে বাঙালীর চিরন্তন সংস্কৃতি ও মূল্যবোধের উপর আঘাত হেনেছে। যা কখনই কাম্য হতে পারে না। এ ব্যাপারে সকলকে জেগে উঠার আহবাস জানান তারা।

মন্তব্য করুন

Please Login to comment
avatar
  Subscribe  
Notify of