ব্রেকিং নিউজ

আপডেট ১ মিনিট ২ সেকেন্ড

ঢাকা শনিবার, ৮ মে, ২০২১, ২৫ বৈশাখ, ১৪২৮, গ্রীষ্মকাল, ২৫ রমজান, ১৪৪২

বিজ্ঞাপন

সাংবাদিকদের সাথে সিলেট-৩ আসনের সম্ভাব্য জাতীয় সংসদ সদস্য পদপ্রার্থীর মতবিনিময়

সিলেট ব্যুরো

নিরাপদ নিউজ

সাবেক সহকারী অ্যাটর্নী জেনারেল, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের কেন্দ্রীয় নেতা সিলেট-৩ আসনের সম্ভাব্য জাতীয় সংসদ সদস্য পদপ্রার্থী, এডভোকেট আব্দুর রকিব মন্টু বলেছেন, নেতার কাছে জনগনের দায়বদ্ধতা নয়, নেতা হবেন দলের কর্মী এবং জনগনের কাছে দায়বদ্ধ, এমন নেতা মনোনীত করা প্রয়োজন।

বিজ্ঞাপন

তিনি রবিবার (১১এপ্রিল) বিকেলে সিলেট অনলাইন প্রেসক্লাব মিলনায়তনে সিলেটে কর্মরত অনলাইন গণমাধ্যম কর্মীদের সাথে এক মতবিনিময় সভায় উপরোক্ত মন্তব্য করেন। তিনি বলেন,স্কুল জীবন থেকেই আমার রাজনীতির হাতেকড়ি,পড়ালেখার পাশাপাশি অনেক প্রতিকুল পরিবেশে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শকে বুকে ধারন করে সক্রিয়ভাবে রাজনীতিতে সকল সময়ই ছিলাম, এখনো বছি। দেশ বিদেশে পড়া লেখা করে সকলের দোওয়ায় উচ্চতর ডিগ্রী অর্জন করার সৌভাগ্য হয়েছে, কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে শুরু করে স্হানীয় জাতীয় রাজনীতিতে বিভিন্ন পর্যায়ে আমার দায়িত্ব পালনের সুযোগ হয়েছে। পেশাগত ভাবে একজন আইনজীবী হিসেবে সরকার মনোনীত একজন সহকারী অ্যাটর্নী জেনারেল হিসেবে দীর্ঘদিন দায়িত্বপালন করার সুবাদে জাতীয় ও আন্তর্জাতিকভাবে আলোচিত ১৫ই আগষ্ট জাতির পিতাকে স্বপরিবারে হত্যা মামলা, জাতীয় চার নেতা অর্থাৎ জেল হত্যা মামলা সহ অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ মামলাগুলো রাষ্ট্রপক্ষে বিশ্বস্ততার সঙ্গে পরিচালনা করারও আমার সুযোগ হয়েছে।

তিনি বলেন, সকল সময়ই দেশপ্রেমকে বুকে ধারন ও লালন করে রাষ্ট্রপক্ষে, সত্য ও ন্যায়ের পক্ষে জনকল্যাণের পক্ষে কাজ করার জন্য নিজেকে নিয়োজিত রাখার চেষ্টা করেছি। সুযোগ পেলে ভবিষ্যতেও নিজ এলাকা সিলেট-৩ সংসদীয় আসন তথা সিলেটবাসীর কল্যাণে আরো ব্যাপক পরিসরে কাজ করতে চাই। তিনি বলেন আমার নেত্রী, বঙ্গালী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনা এবং দলীয় মনোনয়ন বোর্ড আমাকে প্রার্থী হিসেবে মনোনীত করলে আমি আমার সর্বশক্তি দিয়ে দেশ এবং জনগনের সেবায় একজন কর্মী হিসেবে নিজেকে নিবেদন করতে চাই। এ ক্ষেত্রে তিনি সকলের দোওয়া ও সহযোগিতা কামনা করেন।

এডভোকেট মন্টু বলেন, যোগ্য নেতৃত্বের অভাব ও কিছু নেতার অপরিচ্ছন্ন রাজনীতির কারণে আমাদের যুবসমাজের বিপর্যয় ঘটছে। তাদেরকে সুপথে ফিরিয়ে আনতে আমাদের রাজনৈতিক নেতাদের আরো বিচক্ষণ ও দূরদর্শী হতে হবে। চর্চাভিত্তিক রাজনীতির পথ তৈরি করে রাজনীতিকে আরো পরিচ্ছন্ন করতে হবে।’

তিনি বলেন, রাজনীতির কারণে আমাদের সমাজে সালিশি বিচারের হার কমে গেছে। আগে ছোটখাটো সমস্যা হলে সামাজিকভাবে মীমাংসা করা হতো। কিন্তু এখন একটা ছোট্ট সমস্যা হলেই রাজনীতি শুরু হয়ে যায়। সুপ্রিম কোর্ট পর্যন্ত সেই মামলা পৌঁছায়। ফলে আদালতে মামলার জট কমছে না।

তিনি বলেন, সমাজের এসব অসঙ্গতি দুর করতে ও আমার নিজের এলাকার মানুষের সমস্যার সমাধানে আমি আমার অবস্থান থেকে কাজ করছি। জনপ্রতিনিধি হয়ে আরো কাছে এসে সকলের সাথে কাজ করার ইচ্ছা রয়েছে। সেজন্য ২০০৮, ২০১৪ ও সর্বশেষ ২০১৮ সালে আমার নিজ এলাকা সিলেট-৩ আসনে (দক্ষিণ সুরমা, ফেঞ্চুগঞ্জ ও বালাগঞ্জের একাংশ) সংসদ সদস্য নির্বাচনে প্রার্থী হতে চেয়েছিলাম। কিন্তু (নেত্রী) শেখ হাসিনা আমাকে পরবর্তীতে মনোনয়ন দেবেন বলে আশ্বস্ত করেছিলেন। কিন্তু আমাদের সাবেক সাংসদ মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী কয়েস সম্প্রতি অকালে মৃত্যুবরণ করায় বর্তমানে সাংবিধানিকভাবে এই আসন শূন্য হয়ে গেছে। তাই এখানে আমি নির্বাচনের জন্য মনোনয়ন প্রত্যাশি। বঙ্গবন্ধু কন্যা জনেেনত্রী শেখ হাসিনা আমাকে সুযোগ দিলে আমি নির্বাচন করবো। শিক্ষা দীক্ষা ও পারিবারিক অবস্থার বিবেচনায় মানুষ আমাকেই নির্বাচিত করবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যাক্ত করেন।

উল্লেখ্য, অ্যাডভোকেট আব্দুর রকিব মন্টু  বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের কার্যনির্বাহী কমিটি বর্তমান ও সাবেক দুবারের সদস্য, তাছাড়া তিনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক, ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক, সিলেট জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি বর্তমানে বাংলাদেশ এ্যাথলেটিক্স ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক ছাড়াও বাংলাদেশ অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনের কার্যরিনর্বাহী সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments
0
Would love your thoughts, please comment.x
()
x