English

24 C
Dhaka
বুধবার, ফেব্রুয়ারি ২১, ২০২৪
- Advertisement -

স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করুন: হাওরাঞ্চলে বেহাল উপস্বাস্থ্য কেন্দ্র

- Advertisements -
দেশের সব উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স, ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কেন্দ্রসহ সরকারি হাসপাতালগুলোর অবস্থা যে খুব একটা ভালো নয়, এ কথা নতুন করে বলার অপেক্ষা রাখে না। দেখা যায়- ভবন আছে, বরাদ্দ আছে, কিছু চিকিৎসা সরঞ্জামও আছে, কিন্তু চিকিৎসা নেই।আবার এমন চিত্রও আছে যে গ্রামাঞ্চলের দরিদ্র রোগীদের যাঁরা চিকিৎসা দেবেন, খাতায়-কলমে নাম পাওয়া গেলেও বাস্তবে তাঁদের দেখা মেলে না। গ্রামাঞ্চলের দরিদ্র মানুষের চিকিৎসাসেবা নিশ্চিত করার জন্য বিপুল অর্থ ব্যয়ে স্বাস্থ্যসেবার একটি নেটওয়ার্ক গড়ে তুলেছে সরকার।
অন্যদিকে চিকিৎসকদের একটি সাধারণ প্রবণতা হচ্ছে গ্রামাঞ্চলে যেতে না চাওয়া। প্রধানমন্ত্রী নিজেও এ নিয়ে বহুবার ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।
দেশের ৮০ শতাংশ মানুষের বাস গ্রামে। তারা এখনো জরুরি অনেক স্বাস্থ্যসেবা থেকে বঞ্চিত।
স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সগুলোতেও আধুনিক চিকিৎসার সুযোগ নেই বললেই চলে। অনেক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স, ইউনিয়ন স্বাস্থ্য কেন্দ্রসহ সরকারি অনেক হাসপাতালের অবস্থা এখন অত্যন্ত শোচনীয়। ভবন আছে, বরাদ্দ আছে, কিছু চিকিৎসা সরঞ্জামও আছে, কিন্তু চিকিৎসা নেই। ঠিক এ রকম একটি খবর প্রকাশিত হয়েছে।
প্রকাশিত খবরে বলা হয়েছে, সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার দুর্গম এলাকার সব কটি উপস্বাস্থ্যকেন্দ্রের অবস্থা বেশ নাজুক। লোকবল ও ওষুধ সংকটসহ নানা ধরনের সংকটে স্বাস্থ্য বিভাগের এসব পুরনো উপস্বাস্থ্যকেন্দ্রের স্বাস্থ্যসেবা নেই বললেই চলে।
এসব উপস্বাস্থ্যকেন্দ্রে মেডিক্যাল অফিসার, সাব অ্যাসিস্ট্যান্ট কমিউনিটি মেডিক্যাল অফিসার (স্যাকমো), ফার্মাসিস্ট, মিডওয়াইফ, অফিস সহায়কসহ পাঁচজনের পদ রয়েছে। তবে বাস্তবে প্রতিটিতে এক থেকে দুজন কর্মরত। বেশির ভাগ স্বাস্থ্যকেন্দ্রেই মেডিক্যাল অফিসার, সাব অ্যাসিস্ট্যান্ট কমিউনিটি মেডিক্যাল অফিসারসহ (স্যাকমো) সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের আবাসিক ব্যবস্থা আছে, কিন্তু একটিতেও পূর্ণাঙ্গ জনবল নেই।
এক দশক ধরে এসব উপস্বাস্থ্যকেন্দ্রে স্যাকমো পদে নিয়োগ বন্ধ। আমরা অনেক আগেই সহস্রাব্দের লক্ষ্যমাত্রা বা এমডিজি অর্জন করেছি। শিশু ও মাতৃমৃত্যুর হার কমেছে। কিছু উন্নয়নও হয়েছে। কিন্তু এখনো করার অনেক কিছুই বাকি রয়ে গেছে। বর্তমান সরকার গ্রামাঞ্চলে কয়েক হাজার কমিউনিটি ক্লিনিক চালু করলেও সেগুলোর মান নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে।
আমাদের মনে রাখতে হবে, জনগোষ্ঠীর স্বাস্থ্য ঠিক না থাকলে কোনো উন্নয়নই টেকসই হয় না। চিকিৎসাব্যবস্থাও যদি ভেঙে পড়ে, তাহলে মানুষ যাবে কোথায়? এই অবস্থার পরিবর্তন করতে হবে। মানসম্মত স্বাস্থ্যসেবা বাড়াতে হবে। আমরা আশা করব, হাওরাঞ্চল শুধু নয়, দেশের সব উপস্বাস্থ্যকেন্দ্র পূর্ণ জনবল নিয়ে স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করবে।
সাবস্ক্রাইব
Notify of
guest
0 মন্তব্য
Inline Feedbacks
View all comments
Advertisements
সর্বশেষ
- Advertisements -
এ বিভাগে আরো দেখুন