English

24 C
Dhaka
শুক্রবার, ডিসেম্বর ২, ২০২২
- Advertisement -

ফারহানা মিলির সঙ্গে প্রথম বারের মতো জুটি বাঁধলেন রাশেদ সীমান্ত

- Advertisements -
Advertisements

মনপুরা’ চলচ্চিত্রের আলোড়ন তোলা নায়িকা ফারহানা মিলির সঙ্গে প্রথম বারের মতো জুটি বাঁধলেন রাশেদ সীমান্ত। নাটকের নাম ‘বিয়ে বাণিজ্য’। টিপু আলম মিলনের গল্পে সুবাতা রাহিক জারিফার চিত্রনাট্যে নাটকটি পরিচালনা করেছেন এবি রোকন। আরো অভিনয় করেছেন অলিউল হক রুমি, শফিক খান দিলুসহ অনেকে। রাশেদ সীমান্ত হাতেগোনা যে কয়েকটি নাটকে অভিনয় করেছেন তার প্রায় প্রতিটি নাটকই কোটি কোটি ভিউ ছাড়িয়ে গেছে। নাটকপাগল দর্শকদের কাছে তিনি আজ তুমুল জনপ্রিয়। বর্তমানে টিভি মিডিয়ায় প্রথম সারির যে ক’জন অভিনেতা আছেন রাশেদ সীমান্ত তাদের মাঝে একজন।

সম্প্রতি ঢাকার উত্তরায় শুটিং হলো নাটকটির। নাটকটি নিয়ে দারুণ আশাবাদী রাশেদ সীমান্ত। বিশেষ করে ফারহানা মিলির হৃদয় ছোঁয়া অভিনয় মানুষ মনে রাখবে দীর্ঘদিন।

Advertisements

গল্পকার টিপু আলম মিলন বলেন, নাটকের নায়ক জগলুল হায়দার তথ্য গোপন করে একরে পর এক বিয়ে করেন এবং কিছুদিন পর পর তার অবস্থান পরিবর্তণ করেন। জগলুল হায়দার কোন সাধারণ মানুষকে বিয়ে করেন না। তিনি দূরারোগ্য রোগে আক্রান্ত অসহায় গরীব মেয়েদের বিয়ে করেন এবং তাদের ভালোমন্দ খাওয়া-দাওয়া দেখা শুনা সর্বোপরি সকল দায়িত্ব নিজ কাঁধে তুলে নেন। এভাবে একের পর এক বাড়তে থাকে জগলুল হায়দারের বিয়ের সংখ্যা। এতে তাকে সাহায্য করেন তার সহকারী সিদ্দিক। যে জগলুল হায়দারকে নতুন নতুন বিয়ের জন্য পাত্রীর খোঁজ এনে দেয় তাকে সম্মানী দেয় জগলুল হায়দার। ১৬তম বিয়েতে জগলুল হায়দারের ঘরে স্ত্রী হয়ে আসে লাবণী। লাবণীও দূরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্ত কিন্তু অন্য দশটা সাধারণ মেয়ের মত লাবণী চায় তার স্বামীর সেবা করতে যা জগলুলের অতীতের কোন স্ত্রী করেনি। অবাক হয় জগলুল। ধীরে ধীরে লাবণীর প্রতি একধরনের ভালো লাগা কাজ করতে থাকে জগলুলের। কিন্তু জগলুল তো আরো অনেক বিয়ে করেছে! তাহলে তাদের কি তার ভালো লাগেনি? সে উত্তর খুঁজতে অপেক্ষা করতে হবে নাটকটি দেখার জন্য। প্রচার হবে বৈশাখী টেলিভিশনে।

সাবস্ক্রাইব
Notify of
guest
0 মন্তব্য
Inline Feedbacks
View all comments
Advertisements
সর্বশেষ
- Advertisements -
এ বিভাগে আরো দেখুন