English

31 C
Dhaka
শনিবার, এপ্রিল ১৩, ২০২৪
- Advertisement -

সালমান শাহ ছাড়া ২যুগ

- Advertisements -

ঢাকাই চলচিত্রের এক মুকুটবিহীন রাজা ছিলেন সালমান শাহ । খুবই অল্প সময় বাংলাদেশের চলচ্চিত্রে রাজত্ব করেছিলেন কিংবদন্তি এই অভিনেতা। বেঁচে থাকলে ২০২০ এ তার বয়স হতো ৪৯ বছর। কিন্তু তা নয়, কোনো এক অভিমানে মাত্র ২৫ বছর বয়সে ১৯৯৬ সালের আজকের এই দিনে চলে যান না ফেরার দেশে।
১৯৭১ সালের ১৯ সেপ্টেম্বর সিলেটের দাড়িয়াপাড়ার নানাবাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন সালমান শাহ। পারিবারিক নাম শাহরিয়ার চৌধুরী ইমন। বাবা কমর উদ্দিন চৌধুরী ও মা নীলা চৌধুরী। দুই ভাইয়ের মধ্যে সালমান বড়। ছোটবেলায় তিনি ছিলেন কণ্ঠশিল্পী। ইমন নামে অভিনয় জীবন শুরু হয় বিটিভিতে শিশুশিল্পী হিসেবে। ১৯৯৩ সোহানুর রহমান সোহানের হাত ধরে আসেন চলচ্চিত্রে। কেয়ামত থেকে কেয়ামত ছবিতে অভিনয়ের মধ্য দিয়ে তিনি হয়ে ওঠেন বাংলা সিনেমার সুপার স্টার । আজও মানুষের মুখে মুখে ফেরে তার ছবির নাম। স্টাইল আর অভিনয় দিয়ে বদলে দিয়েছিলেন বাংলা ছবির প্রেক্ষাপট। ক্যারিয়ারের অল্প সময়ে মাত্র ২৭টি ছবিতে অভিনয় করেন। তার প্রায় প্রতিটি ছবি ছিল ব্যবসাসফল। সালমানের সর্বমোট মুক্তিপ্রাপ্ত ২৭টি। যার মধ্যে ১৪টিতেই তার নায়িকা ছিলেন শাবনূর।
সালমান শাহ ১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর রহস্যজনকভাবে মৃত্যুবরণ করেন। আদালত থেকে তার মৃত্যুকে আত্মহত্যা বলা হলেও তার পরিবার ও ভক্তদের দাবি তাকে হত্যা করা হয়েছে।স্রম্পতি পিবিআই এর তদন্তে তার মৃত্যুকে আত্মহত্যা বলে বলা হলে তার পরিবারের পক্ষ থেকে এ তদন্ত রির্পোটকে প্রত্যাখান করে আদালতে নারাজি পিটিশন দাখিলের জন্য সময় প্রার্থনা করেছেন।
স্বপ্নের নায়ক’ ‘স্বপ্নের পৃথিবী’ থেকে বিদায় নিলেও আজও সালমান শাহ আছেন ভক্তদের ‘অন্তরে অন্তরে’। আছেন ঢাকাই সিনেমার ‘স্বপ্নের ঠিকানায়’। তাই ভক্ত-সমালোচকরদের দাবি খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে সালমান শাহ মৃত্যু রহস্যের জট উন্মোচিত হউক জাতির কাছে।
তারুণ্যদীপ্ত এক স্টাইলিস্ট চিত্রনায়ক সালমান শাহ

সাবস্ক্রাইব
Notify of
guest
0 মন্তব্য
Inline Feedbacks
View all comments
Advertisements
সর্বশেষ
- Advertisements -
এ বিভাগে আরো দেখুন