English

24 C
Dhaka
বুধবার, নভেম্বর ৩০, ২০২২
- Advertisement -

২৯ বছর বয়সে মারা গেলেন পৃথিবীর সবচেয়ে লম্বা নারী

- Advertisements -

তিন তিনটি গিনেজ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসের অধিকারী পৃথিবীর সবচেয়ে লম্বা নারী হুদা আব্দুল গাওয়াদ গতকাল মিসরে কিডনি জটিলতায় মারা গেছেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ২৯ বছর। মিসরীয় গণমাধ্যম তাঁর মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

Advertisements

তাঁর তিনটি টাইটেল হলো : ১. সবচেয়ে লম্বা হাতের পাতা (সাড়ে ৯ ইঞ্চি), ২. সবচেয়ে লম্বা পায়ের পাতা (১৩ ইঞ্চি) এবং আড়াআড়িভাবে প্রসারিত দুই বাহুর সর্বোচ্চ দূরত্ব (পৌনে আট ফুট)। তাঁর হাতের পাতা দৈর্ঘে একটি ডিনার প্লেটের ব্যসের অধিক বড় ছিল।

তাঁর ভাই মোহাআম্মদের বয়স ৩৪। তিনিও একাধিক টাইটেলের অধিকারী। তাঁর বাঁ হাতের পাতার দৈর্ঘ জীবিত যেকোনো পুরুষের মধ্যে সর্বোচ্চ, ১২.৩২ ইঞ্চি। মোহাম্মদের আরো একটি রেকর্ড আছে, সেটি হলো আড়াআড়িভাবে প্রসারিত দুই বাহুর সর্বোচ্চ দূরত্ব, আট ফুট আড়াই ইঞ্চি।

এক সঙ্গে এই দুই ভাই-বোন লন্ডনে চলাচলরত একটি ডাবল-ডেকার বাসের প্রায় সমান উচ্চতাসম্পন্ন ছিলেন। তাঁদের সম্মিলিত উচ্চতা ছিল ১৩ ফুট ৭ ইঞ্চি।

Advertisements

১৯৯১ সালের জানুয়ারিতে জন্ম হুদার। ১২ বছর পর্যন্ত তিনি স্বাভাবিক ছিলেন। এর পরই তিনি অনুভব করেন- তিনি দ্রুত অন্যদের চেয়ে লম্বা হয়ে যাচ্ছেন। তিনি তাঁর মা রুহির সঙ্গে একটি ছোট গ্রামে বাস করতেন। গ্রামটি মিসরের রাজধানী কায়রো থেকে ৯০ মিনিটের পথ।

হুদার ভাই মোহাম্মদের ক্ষেত্রেও একই ঘটনা। তিনিও ১২ বছর বয়স থেকে লম্বা হতে শুরু করেন। একসময় তিনি রেকর্ড-ব্রেকিং লম্বা হয়ে ওঠেন। এই দুই ভাই-বোন তাঁদের পোশাক তৈরি করতেন নিজেদের শহরের এক টেইলরের কাছ থেকে।

সাবস্ক্রাইব
Notify of
guest
0 মন্তব্য
Inline Feedbacks
View all comments
Advertisements
সর্বশেষ

আল কোরআন ও আল হাদিস

- Advertisements -
এ বিভাগে আরো দেখুন