English

30 C
Dhaka
রবিবার, জুন ১৬, ২০২৪
- Advertisement -

ইঁদুর ডুবিয়ে মারার অভিযোগে গ্রেপ্তার যুবক

- Advertisements -
Advertisements
Advertisements

ক্ষতিকর প্রাণী হওয়ায় ইঁদুর মারা খুবই সাধারণ ঘটনা। কিন্তু ইঁদুরকে ডুবিয়ে মারার অভিযোগে কারও জেল হতে শুনেছেন কখনও? এমন ঘটনা এই প্রথম ঘটল ভারতের উত্তরপ্রদেশের বাদাউনে। যেখানে এক ব্যক্তির জেল হয়েছে ইঁদুরকে নর্দমায় ডুবিয়ে ‘খুন’ করার অভিযোগে। ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে অভিযোগ, ২০২২ সালের নভেম্বরে তিনি একটি ইঁদুরকে নর্দমায় ডুবিয়ে খুন করেছেন। এখন আইন অনুযায়ী তার ৫ বছরের জেল হওয়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে।

এনডিটিভি জানিয়েছে, ৩০ বছরের ওই যুবকের নাম মনোজ কুমার। আর তার বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলেন বিকেন্দ্র শর্মা নামে এক ব্যক্তি। পশুদের বিরুদ্ধে নিষ্ঠুরতা প্রতিরোধ আইনের অধীনে গ্রেফতার হয়েছিলেন মনোজ। বিকেন্দ্রর অভিযোগ, নেশার ঘরে একটি ইঁদুরের লেজে পাথর বেঁধে তাকে নর্দমায় ফেলে দেয় মনোজ। নর্দমার ফেলে দেওয়ার আগে ইঁদুরটিকে বারবার নর্দমার জলে ডুবাচ্ছিলেন। কিচ্ছুক্ষণ রেখে আবার তুলেচ্ছিলেন।

এই কাজ বার বার করায় তার প্রতিবাদ করেন বিকেন্দ্র। কিন্তু তার কথা কানে না তুলে নিজের কাজ চালিয়ে যান মনোজ। শেষমেশ ইঁদুরটির লেজে একটি পাথর বেঁধে নর্দমায় ছুঁড়ে ফেলে দেন মনোজ। এই নিষ্ঠুরতার দৃশ্য সহ্য করতে না পেরে মনোজের বিরুদ্ধে পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করেছিলেন বিকেন্দ্র। সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই গ্রেফতার হন মনোজ।
তবে শেষ পর্যন্ত যদিও পাঁচ দিনের মাথায় আদালত থেকে জামিন পেয়েছেন তিনি। এমনকি ময়নাতদন্তের জন্যে পাঠানো হয়েছিল মৃত ইঁদুরের দেহ। রিপোর্টে স্পষ্ট ছিল যে, ডুবেই মৃত্যু হয়েছিল ইঁদুরটির। পুলিশ জানিয়েছে, ময়নাতদন্তের রিপোর্ট, ভিডিও প্রমাণ এবং স্থানীয়দের বক্তব্যের ভিত্তিতে তদন্তকারী কর্মকর্তারা মনোজ কুমারের বিরুদ্ধে চার্জশিট জমা দিয়েছেন। যা শীঘ্রই দাখিল করা হবে আদালতে। ভারতীয় আইন অনুযায়ী তার সর্বোচ্চ ৫ বছরের জেল হতে পারে।
সাবস্ক্রাইব
Notify of
guest
0 মন্তব্য
Inline Feedbacks
View all comments
Advertisements
সর্বশেষ
- Advertisements -
এ বিভাগে আরো দেখুন