English

27 C
Dhaka
বুধবার, জুলাই ৬, ২০২২
- Advertisement -

নিয়মিত করলা খেলে রোগবালাই দূরে পালাবে

- Advertisements -

করলা তেতো হলেও অনেকের প্রিয়। করলা রুচিবর্ধক সবজি। ভাজি, ভর্তা, ব্যাঞ্জনে করলার অনেক কদর। চিংড়ি সহযোগে ভাজি, ডালের সঙ্গে রান্না কিংবা মুচমুচে ভাজা-রান্না যেভাবেই হোক করলা স্বাদের। গরম ভাতে আলু-করলা ভাজি খাবারকে আনন্দদায়ক করে তোলে।

Advertisements

স্বাস্থ্যের জন্য এই সবজির উপকারী গুণও কম নয়। তাই খাদ্যতালিকায় নিয়মিত করলা রাখুন। করলার ঔষধি গুণের কথা বলে শেষ করা যাবে না। নিয়মিত করলা খেলে রোগবালাই দূরে পালাবে।

Advertisements

করলার পুষ্টিমান ও কেন নিয়মিত করলা খাবেন— গরমে স্বস্তি দেয় করলা; সঙ্গে শরীর সুস্থ রাখবে। প্রতি ১০০ গ্রাম করলায় ২৮ কিলোক্যালরি, ৯২ দশমিক ২ গ্রাম জলীয় অংশ, ৪ দশমিক ৩ গ্রাম শর্করা, ২ দশমিক ৫ গ্রাম আমিষ, ১৪ মিলিগ্রাম ক্যালসিয়াম, ১ দশমিক ৮ মিলিগ্রাম লোহা ও ৬৮ মিলিগ্রাম ভিটামিন সি আছে।

কেন নিয়মিত করলা খাবেন

    • করলা উচ্চরক্তচাপ ও চর্বি কমায়। এতে থাকা ভিটামিন সি ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ত্বক ও চুল ভালো রাখে। বার্ধক্য ঠেকিয়ে তারুণ্য ধরে রাখতে সাহায্য করে।
    • হিমোগ্লোবিন তৈরি করে রক্তের উপাদান বাড়াতে করলার জুড়ি মেলা ভার। রক্তশূন্যতায় ভুগছেন এমন রোগীদের জন্য উত্তম পথ্য করলা।
    • এটি ভাইরাস ও কৃমিনাশক হিসেবেও কাজ করে।
    • করলার রস শক্তিবর্ধক হিসেবে কাজ করে। স্ট্যামিনা বাড়ানোর পাশাপাশি ভালো ঘুম হতেও সহায়তা করে।
    • পানির সঙ্গে মধু ও করলার রস মিশিয়ে খেলে অ্যাজমা, ব্রঙ্কাইটিস, শ্বাসরোগ ও গলার প্রদাহে উপকার পাওয়া যায়।
    • করলায় রয়েছে রক্তে চিনি কমানোর উপাদান। ডায়াবেটিস রোগীরা রক্তে চিনির পরিমাণ নিয়ন্ত্রণে নিয়মিত করলা খেতে পারেন।
    • করলা হজমপ্রক্রিয়ার গতি বাড়ায়। কোষ্ঠকাঠিন্য ও পরিপাকতন্ত্রের জটিলতা কমাতে নিয়মিত করলা খেতে পারেন।
  • করলা শরীরে রোগ প্রতিরোধক্ষমতা বাড়ায় এবং শরীরকে সংক্রমণের বিরুদ্ধে লড়তে সাহায্য করে।
সাবস্ক্রাইব
Notify of
guest
0 মন্তব্য
Inline Feedbacks
View all comments
Advertisements
সর্বশেষ
- Advertisements -
এ বিভাগে আরো দেখুন