English

31 C
Dhaka
সোমবার, আগস্ট ১৫, ২০২২
- Advertisement -

কী আছে বরিস জনসনের ভাগ্যে?

- Advertisements -

হঠাৎ করেই পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছিলেন ব্রিটিশ অর্থমন্ত্রী ঋষি সুনাক ও স্বাস্থ্যমন্ত্রী সাজিদ জাভিদ। এরপর বুধবারই আরও তিন ব্রিটিশ মন্ত্রী পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছেন। আর এই ঘোষণায় আরও কোণঠাসা হয়ে পড়েছেন প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনও।

সবশেষ বরিসের মন্ত্রীসভা ছাড়ার ঘোষণা দিয়েছেন স্কুলবিষয়ক মন্ত্রী রবিন ওয়াকার। এই মন্ত্রী জানিয়েছে, বরিস জনসনের নেতৃত্বে তিনি আর আস্থা রাখতে পারছেন না।

Advertisements

এর আগে পদত্যাগের ঘোষণা দিয়েছিলেন শিশু ও পরিবারবিষয়কমন্ত্রী উইল কুইন্স। তার দাবি, এমন সময়ে পদত্যাগ ছাড়া তার সামনে আর কোনও উপায় ছিল না।

সরকারের ওপর ‘আস্থা’ না রাখতে পারায় জুনিয়র পরিবহনমন্ত্রী লরা ট্রটও পদ ছাড়ার ঘোষণা দিয়েছেন।

গতকাল মঙ্গলবার খুব কাছাকাছি সময়ে অর্থমন্ত্রী ঋষি সুনাক ও স্বাস্থ্যমন্ত্রী সাজিদ জাভিদ পদত্যাগ করেন। পদত্যাগের পর তারা বরিসের নেতৃত্ব নিয়েও তারা প্রশ্ন তোলেন।

সুনাক-সাজিদের পর আরও কয়েকজন পদত্যাগের ঘোষণা দেন। তাদের মধ্যে রয়েছেন, কনজারভেটিভ পার্টির ভাইস চেয়ারম্যান বিম অ্যাফোলামি ও সলিসিটর জেনারেল অ্যালেক্স চক। এ ছাড়া প্রধানমন্ত্রীর আরও চার সহযোগীও পদত্যাগ করেন।

Advertisements

গণহারে এমন পদত্যাগের ঘোষণা আসায় রীতিমত বিপাকে বরিস জনসন। তার প্রধানমন্ত্রীর ক্যারিয়ারই পড়ে গেছে হুমকির মুখে। ইতিমধ্যে নতুন অর্থমন্ত্রী হিসেবে নাদিম জাহাবির নাম ঘোষণা করেছেন বরিস। নাদিম শিক্ষামন্ত্রীর দায়িত্বে ছিলেন। শিক্ষামন্ত্রীর শূন্য পদে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে মিশেল ডোনেলানকে।

আর স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসেবে সাজিদের স্থলাভিষিক্ত করা হয়েছে স্টিভ বার্কলেকে। তিনি প্রধানমন্ত্রীর চিফ অব স্টাফের দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন।

তবে মন্ত্রিসভা পুনর্গঠন করে বরিস শেষ পর্যন্ত নিজের গদি টিকিয়ে রাখতে পারবেন কিনা সে নিয়ে সংশয় দেখা দিয়েছে। সবশেষ আরও তিন মন্ত্রীর পদত্যাগের সেই শঙ্কা হয়েছে আরও তীব্র।

সাবস্ক্রাইব
Notify of
guest
0 মন্তব্য
Inline Feedbacks
View all comments
Advertisements
সর্বশেষ
- Advertisements -
এ বিভাগে আরো দেখুন