English

29 C
Dhaka
শনিবার, জুন ১৫, ২০২৪
- Advertisement -

কমলগঞ্জে কালবৈশাখীতে ক্ষতিগ্রস্ত শতাধিক ঘরবাড়ি

- Advertisements -
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে কালবৈশাখীতে শতাধিক ঘরবাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। প্রায় ৫০টি গাছ উপড়ে পড়েছে। বিদ্যুতের চারটি খুঁটি ভেঙে পড়েছে এবং শতাধিক স্থানে তার ছিঁড়ে গেছে। ফলে ওই সব এলাকায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ রয়েছে।
প্রায় পাঁচ হেক্টর জমির পাকা ধানের ক্ষতি হয়েছে। শনিবার (২৭) ভোরে এই কালবৈশাখী বয়ে যায়। 

সরেজমিন পতনউষার, আদমপুরসহ বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায়, কালবৈশাখীতে অনেকের বসতঘর বিধ্বস্ত। আবার অনেকেরই টিনের চাল উড়ে গেছে।

গাছ-বাঁশ ঘরের ওপরে পড়ে আছে। কেউ ক্ষতিগ্রস্ত ঘর মেরামত করছে। কোথাও বিদ্যুতের খুঁটি ভেঙে পড়েছে। আবার তার ছিঁড়ে অনেক এলাকা বিদ্যুবিচ্ছিন্ন।
খোলা আকাশের নিচে বসবাস করছে অনেক পরিবার।
৬ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য তবারক আলী বলেন, ‘পতনউষার গ্রামটি বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এখানে বিধ্বস্ত হয়েছে প্রায় ৫০টি বাড়িঘর। লিপি বেগমসহ তিনটি পরিবার পুরো খোলা আকাশে নিচে রয়েছে। বিদ্যুত্ব্যবস্থা লণ্ডভণ্ড।
আরেক ইউপি সদস্য সিরাজ খান জানান, তাঁর ওয়ার্ডের শ্রীসূয়, পেকুপাড়ায় পাঁচ-ছয়টি ঘর আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা জয়ন্ত কুমার রায় জানান, ঝড় ও শিলাবৃষ্টিতে বিভিন্ন ইউনিয়নে পাঁচ হেক্টর পাকা বোরো ধান ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

কমলগঞ্জ জোনাল অফিসের ডিজিএম মীর গোলাম ফারুক বলেন, ‘ঝড়ে চারটি খুঁটি ভেঙেছে, ১৭০টি স্থানে তার ছিঁড়ে পড়েছে এবং ৩০টি মিটার ভেঙেছে। ওই সব এলাকায় বিদ্যুত্ বন্ধ রয়েছে। দ্রুত মেরামতের চেষ্টা চলছে।’

কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জয়নাল আবেদীন বলেন, ‘ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে সরকারি সহায়তা প্রদানের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

সাবস্ক্রাইব
Notify of
guest
0 মন্তব্য
Inline Feedbacks
View all comments
Advertisements
সর্বশেষ
- Advertisements -
এ বিভাগে আরো দেখুন